আজ বেলা আড়াইটার দিকে যশোর ৪৯ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল শাহেদ মিনহাজের পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ভারতে সোনা পাচার হওয়ার গোপন খবর পেয়ে আজ সকালে শার্শা উপজেলার শালকোনো বিজিবি ক্যাম্পের নায়েক মো. শরিফুল ইসলামের নেতৃত্বে বিজিবির সদস্যরা উপজেলার নারকেলবাড়িয়া গ্রামের ভারতীয় সীমান্ত এলাকায় একটি বিশেষ অভিযান পরিচালনা করেন। সকাল সাড়ে আটটার দিকে সীমান্তের বাংলাদেশ অংশ দিয়ে সাদা শার্ট পরা এক ব্যক্তিকে গোলাপি রঙের একটি ব্যাগ হাতে ভারত সীমান্তের দিকে যেতে দেখা যায়। চলাচল সন্দেহজনক মনে হওয়ায় টহল দল তাঁকে ধাওয়া দেয়। এ সময় তিনি হাতে থাকা ব্যাগটি পাশের শর্ষেখেতের মধ্যে ফেলে ভারতের দিকে দৌড়ে পালিয়ে যান। পরে ব্যাগটি উদ্ধার করেন বিজিবি সদস্যরা।

লে. কর্নেল শাহেদ মিনহাজ জানান, ব্যাগের ভেতর ২০টি সোনার বার পাওয়া যায়। এগুলোর ওজন ২ কেজি ৩৩০ গ্রাম। বাজারমূল্য প্রায় ২ কোটি ১৭ লাখ ৮৫ হাজার ৫০০ টাকা। সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে তিনি বলেন, পালিয়ে যাওয়া ওই পাচারকারীর নাম তারিকুল ইসলাম ওরফে তারেক (৪০)। তিনি শার্শা উপজেলার শালকোনা গ্রামের বাসিন্দা। এ ঘটনায় তাঁর বিরুদ্ধে শার্শা থানায় মামলা হয়েছে। তাঁকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। উদ্ধার করা সোনা কোষাগারে জমা দেওয়া হয়েছে।