দণ্ডিত আসামি হলেন গোপালপুর উপজেলার ভুটিয়া গ্রামের আবু হানিফের ছেলে আলমগীর হোসেন (৩৬)। বর্তমানে তিনি পলাতক।

টাঙ্গাইলের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিশেষ পিপি আলী আহমেদ এবং এপিপি মোহাম্মদ আবদুল কুদ্দুস জানান, অপহরণের পর ধর্ষণের শিকার ওই মেয়ে স্থানীয় একটি স্কুলের চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রী ছিল। ২০০৮ সালের ৭ সেপ্টেম্বর সকালে অন্যান্য দিনের মতো সে স্কুলে যায়। সেখান থেকে তাকে অপহরণ করে আসামি আলমগীর হোসেন তাঁর মামার বাড়িতে নিয়ে ধর্ষণ করেন।

মোহাম্মদ আবদুল কুদ্দুস আরও জানান, অপহরণ ও ধর্ষণের ঘটনায় ৮ সেপ্টেম্বর ওই ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে আলমগীর হোসেনের বিরুদ্ধে গোপালপুর থানায় মামলা করেন। ২০০৮ সালের ১৮ ডিসেম্বর গোপালপুর থানার উপপরিদর্শক তাজাম্মেল হক একমাত্র আসামি আলমগীর হোসেনের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।