পুলিশ ও স্থানীয় বাসিন্দাদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের ওই অংশটি খুবই নির্জন। সন্ধ্যা সাড়ে সাতটার দিকে স্থানীয় কয়েকজন ব্যক্তি হেঁটে যাওয়ার সময় মহাসড়কে মানুষের অঙ্গ পড়ে থাকতে দেখে ভয় পেয়ে যান। তাঁরা কাছে গিয়ে দেখেন, একটি লাশের খণ্ডিত অংশ।

খবর পেয়ে ভৈরব হাইওয়ে থানার উপপরিদর্শক নূর মিয়া ঘটনাস্থলে গিয়ে নিহত নারীর লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যান। নিহত নারীর পরিচয় শনাক্তের জন্য আঙুলের ছাপ নিতে নরসিংদীর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) সদস্যদের খবর দেওয়া হয়েছে বলে জানায় হাইওয়ে পুলিশ।

হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোজাম্মেল হক বলেন, নিহত নারীর একটি হাত অক্ষত আছে। তাঁর নাম-পরিচয় জানার চেষ্টা চলছে। লাশ আপাতত থানায় রাখা হয়েছে। এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

এর আগে সন্ধ্যা ছয়টার দিকে শিবপুরের ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের সৈয়দনগর এলাকায় বাস, মিনিবাস ও প্রাইভেট কারের ত্রিমুখী সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে প্রাইভেট কারের চালকসহ চারজন গুরুতর আহত হন। আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাঁদের রাজধানী ঢাকার বিভিন্ন হাসপাতালে পাঠানো হয়।