আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের আজ বুধবার বরগুনা জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে এসব  কথা বলেন। বরগুনা সার্কিট হাউস মাঠে অনুষ্ঠিত ওই সম্মেলনে তিনি প্রধান অতিথি ছিলেন।

ওবায়দুল কাদের আরও বলেন, বিএনপি আগুন–সন্ত্রাসের খেলা শুরু করলে জনগণ তা মোকাবিলা করবে। তারা প্রতিরোধ করবে। বক্তব্যের একপর্যায়ে তিনি বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুলের উদ্দেশে বলেন, ‘ফখরুল সাহেব, দেখে যান আজকের এই সম্মেলনে বঙ্গোপসাগরের ঢেউ আছড়ে পড়ছে। খেলা তো হবেই।’

বিএনপিকে মোকাবিলা করার জন্য নেতা–কর্মীদের প্রস্তুত থাকার আহ্বান জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘শেখ হাসিনা আপনাদের ডাক দেবেন। পুরো ডিসেম্বর মাস আপনাদের মাঠে থাকতে হবে।’

বামদের উদ্দেশে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘তাঁরা (বামপন্থীরা) আদর্শের কথা বলেন, আবার হাওয়া ভবনের যুবরাজের সঙ্গে যোগাযোগ রাখেন। এখন কোথায় গেল তাঁদের আদর্শ। ঢাল নাই তলোয়ার নাই নিধিরাম সর্দার। তাঁরাও এখন বিএনপির সঙ্গে। জিরোর সঙ্গে জিরো যোগ করলে কিছুই হয় না।’

ওই সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন বরগুনা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সংসদ সদস্য ধীরেন্দ্র দেবনাথ শম্ভু। এটি সঞ্চালনা করেন বরগুনা জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির। সম্মেলনের উদ্বোধন করেন কেন্দ্রীয় কমিটির জ্যেষ্ঠ সদস্য আবুল হাসনাত আবদুল্লাহ। সম্মেলনে প্রধান বক্তা ছিলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক আফজাল হোসেন, সদস্য গোলাম রাব্বানী, আনিচুর রহমান।

বরগুনা জেলা আওয়ামী লীগের সর্বশেষ সম্মেলন হয় ২০১৪ সালের ১৫ নভেম্বর। ওই সম্মেলনে ধীরেন্দ্র দেবনাথকে সভাপতি ও জাহাঙ্গীর কবিরকে পুনরায় সাধারণ সম্পাদক করা হয়েছিল। এই দুই নেতা প্রায় ৩০ বছর ধরে জেলা আওয়ামী লীগের শীর্ষ পদে আছেন।