যশোরে আওয়ামী লীগের সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আগমন উপলক্ষে আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় মাগুরায় বীর মুক্তিযোদ্ধা আছাদুজ্জামান মিলনায়তনে জেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত কর্মী সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগের আমলে অনেক উন্নয়নমূলক কাজ হয়েছে উল্লেখ করে ওই কর্মী সভার প্রধান অতিথি জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে চলেছে। সারা দেশে কেবল উন্নয়নের ছোঁয়া। শেখ হাসিনা এ দেশের মানুষকে শিক্ষার নিশ্চয়তা দিয়েছেন। ঠিকানাবিহীন মানুষকে দিয়েছেন ঠিকানা।

১০ ডিসেম্বরে ঢাকায় বিএনপির সমাবেশ ঘিরে নানা বক্তব্যের সূত্র ধরে জাহাঙ্গীর কবির বলেন, ‘বিএনপির কোনো কথারই কোনো ভিত্তি নেই। তারা হচ্ছে দুই কান কাটা লজ্জাশরমহীন রাজনৈতিক দল। তারা বলেছিল, “আওয়ামী লীগকে ভোট দিলে মসজিদে উলুধ্বনি শোনা যাবে। এই বাংলাদেশ ইন্ডিয়া হয়ে যাবে।” কিন্তু তা হয়নি। তবে বাংলাদেশকে শেখ হাসিনা পাকিস্তানও বানাতে দেননি। জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ ডিজিটাল বাংলাদেশে উন্নীত হয়েছে। যার সুবিধা নিচ্ছে বিএনপি–জামায়াতিরা। ওই অপশক্তি ডিজিটাল প্রযুক্তির সুবিধা নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালিয়ে যাচ্ছে। অথচ দেশের উন্নয়ন তাদের চোখে পড়ে না।’

কর্মী সভায় সভাপতিত্ব করেন মাগুরা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আ ফ ম আবদুল ফাত্তাহ। এটি সঞ্চালনা করেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক পঙ্কজ কুন্ডু। কর্মী সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন বাগেরহাট-১ আসনের সংসদ সদস্য শেখ হেলাল উদ্দিন, আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য আবদুর রহমান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক এস এম কামাল হোসেন, বি এম মোজাম্মেল হক, মাগুরা-১ আসনের সংসদ সদস্য সাইফুজ্জামান শিখর, মাগুরা-২ আসনের সংসদ সদস্য বীরেন শিকদার প্রমুখ।

কর্মী সভায় উপস্থিত নেতারা ২৪ নভেম্বর যশোরে প্রধানমন্ত্রীর জনসভা সফল করতে দলীয় নেতা–কর্মীদের স্বতঃস্ফূর্তভাবে অংশগ্রহণের আহ্বান জানান।