নাটোর সদর থানা সূত্রে জানা যায়, গতকাল রাতে জাতীয় জরুরি সেবা নম্বর ৯৯৯ থেকে থানায় কল করে জানানো হয়, ডাঙ্গাপাড়া এলাকায় বোমা বিস্ফোরিত হয়েছে। খবর পেয়ে পুলিশ ডাঙ্গাপাড়া বাজারের পাশে আবদুর রাজ্জাক নামের এক লোকের নির্মাণাধীন চায়ের দোকানে গিয়ে সেখান থেকে আটটি ককটেল উদ্ধার করে। স্থানীয় লোকজন পুলিশকে জানান, কিছুক্ষণ আগে সেখানে পাঁচটি বিস্ফোরণের শব্দ শোনা গেছে। এ ঘটনায় পুলিশ তাৎক্ষণিক ওহাব মণ্ডল নামের বিএনপির এক কর্মীকে গ্রেপ্তার করে থানায় নিয়ে আসে।

আজ মঙ্গলবার সকালে নাটোর সদর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) আরিফুল ইসলাম ককটেল উদ্ধারের খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, এ ঘটনায় গতকাল রাতেই একটি মামলা হয়েছে। বিস্তারিত জানার জন্য তিনি মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই এরশাদ আলীর সঙ্গে যোগাযোগ করার কথা বলেন। পরে ওই কর্মকর্তাকে কল করলে তিনি তা ধরেননি।

নাটোর জেলা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত আহ্বায়ক শহিদুল ইসলাম বলেন, আগামী ৩ ডিসেম্বর রাজশাহীতে বিএনপির মহাসমাবেশ। এ উপলক্ষে জেলাজুড়ে বিএনপির কর্মীরা উজ্জীবিত হয়েছেন। তাঁদের ভয় দেখানোর জন্য পরিকল্পিতভাবে বিস্ফোরক উদ্ধার, শব্দ শোনার সাজানো ‘নাটক’ মঞ্চস্থ করা হচ্ছে। এসব ঘটনায় বিএনপির নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে মামলা দিয়ে হয়রানি করা হচ্ছে।