পুলিশ ও স্থানীয় ব্যক্তিরা জানান, ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা কুড়িগ্রামগামী ফাহমিদা হক পরিবহনের একটি বেপরোয়া গতির যাত্রীবাহী একটি বাস সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার পাশে দাঁড়িয়ে থাকা একটি ব্যাটারিচালিত অটোরিকশাকে চাপা দিয়ে পাশের দোকানে ঢুকে পড়ে। এতে ঘটনাস্থলেই অটোরিকশাচালকের মৃত্যু হয়। এ সময় দোকানটি বন্ধ ছিল।

অটোরিকশাচালক রফিকুল ইসলাম উপজেলার বেইলি ব্রিজ এলাকার জয়নাল হোসেনের ছেলে। দুর্ঘটনার পর এলাকার বিক্ষুব্ধ জনতা মহাসড়ক অবরোধ করেন। এতে ওই সড়কে সকাল ৭টা থেকে ১০টা পর্যন্ত ৩ ঘণ্টা সব ধরনের যানবাহন চলাচল বন্ধ ছিল। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনলে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়।

দুর্ঘটনার পর পালিয়ে যান চালক। তবে জব্দ করেছে পুলিশ। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে কাউনিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোন্তাছের বিল্লাহ বলেন, ঘটনাস্থল থেকে দ্রুত সটকে পড়ায় চালককে শনাক্ত করা সম্ভব হয়নি। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন