প্রত্যক্ষদর্শীদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, আজ সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে কুষ্টিয়া থেকে একটি অটোরিকশা যাত্রী নিয়ে ঈশ্বরদীর দিকে যাচ্ছিল। অটোরিকশাটি সলিমপুর ইউনিয়নের জয়নগর এলাকায় পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে আসা একটি কারের সঙ্গে অটোরিকশাটির মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে অটোরিকশাটি দুমড়েমুচড়ে যায় এবং কারের সামনের অংশ ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এতে অটোরিকশার চালকসহ পাঁচ যাত্রী গুরুতর আহত হন।

খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা তাঁদের উদ্ধার করে ঈশ্বরদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। সেখানে নেওয়ার পর চালক মেহেদী হাসানের অবস্থার অবনতি হলে তাঁকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান।

ঈশ্বরদীর পাকশী হাইওয়ে থানার উপপরিদর্শক (এসআই) আনোয়ার হোসেন বলেন, আহত ব্যক্তিদের চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত প্রাইভেট কার ও অটোরিকশাটি উদ্ধারের চেষ্টা চলছে। নিহত ব্যক্তির পরিবারের সঙ্গে কথা বলে পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন