প্রত্যক্ষদর্শী ও শ্রমিকেরা জানান, কুমুদিনী ওয়েলফেয়ার ট্রাস্টের ৬ নম্বর গুদামটি ইন্টারন্যাশনাল জুট ট্রেডার্স নামের একটি প্রতিষ্ঠান ভাড়া নিয়ে কাঁচা পাট মজুত করেছিল। শ্রমিকেরা কাঁচা পাট প্যাকিং করতেন। ওই গুদামে আজ বেলা ১১টার দিকে আগুনের সূত্রপাত ঘটে। গুদামের ভেতরে সে সময় অর্ধশতাধিক শ্রমিক কাজ করছিলেন। তাঁরা আগুন দেখে চিৎকার করে দ্রুত গুদামের ভেতর থেকে বেরিয়ে যান। অন্য শ্রমিকেরা বালতিতে পানি ও বালু দিয়ে আগুন নেভানোর চেষ্টা করে ব্যর্থ হন। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের দল ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ শুরু করে। এক ঘণ্টা চেষ্টার পর আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। আগুনে ওই গুদামে রাখা বিপুল পরিমাণ কাঁচা পাট পুড়ে গেছে।

শ্রমিকেরা বালতিতে পানি ও বালু দিয়ে আগুন নেভানোর চেষ্টা করে ব্যর্থ হন। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের দল ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ শুরু করে।

কুমুদিনী ওয়েলফেয়ার ট্রাস্টের উপমহাব্যবস্থাপক (অ্যাডমিন অপারেশন) অবসরপ্রাপ্ত কমান্ডার রেজাউল করিম সাংবাদিকদের জানান, গুদামে কোনো বিদ্যুতের সংযোগ ছিল না। এটি তদন্তের বিষয়। কেউ হয়তো সিগারেট খেয়ে ফেলেছে, না হয় নাশকতা করেছে। না হলে এখানে আগুন লাগার কথা নয়। তিনি বলেন, এখানে পাট প্যাকিং করা হতো।

ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স নারায়ণগঞ্জ অফিসের উপসহকারী পরিচালক আবদুল্লাহ আল আরেফিন প্রথম আলোকে জানান, আগুনের খবর পেয়ে মণ্ডলপাড়া ও হাজীগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের ৫টি ইউনিট এক ঘণ্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। তাঁরা চেয়েছেন আগুন যাতে অন্য গুদামগুলোয় ছড়িয়ে পড়তে না পারে। তবে আগুনে হতাহত হওয়ার কোনো ঘটনা ঘটেনি। আগুনে গুদামের ভেতরে থাকা বিপুল পরিমাণ কাঁচা পাট পুড়ে গেছে। আগুন লাগার কারণ উদ্‌ঘাটনে তদন্ত কমিটি করা হবে। তদন্ত কমিটি আগুনের কারণ ও ক্ষয়ক্ষতি নিরূপণ করবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন