রাষ্ট্রপতি, তাঁর স্ত্রী রাশিদা খানমসহ সফরসঙ্গীদের বহনকারী বাংলাদেশ বিমানের একটি ভিভিআইপি ফ্লাইট বেলা ১১টা ৫ মিনিটে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে।

মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক, বাংলাদেশে নিযুক্ত ব্রিটিশ হাইকমিশনার, মন্ত্রিপরিষদ সচিব, তিন বাহিনীর প্রধানগণ, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের এসডিজি–বিষয়ক মুখ্য সমন্বয়ক, পররাষ্ট্রসচিব, স্বরাষ্ট্রসচিব, পুলিশ মহাপরিদর্শকসহ পদস্থ সামরিক ও বেসামরিক কর্মকর্তারা বিমানবন্দরে রাষ্ট্রপতিকে অভ্যর্থনা জানান।

এর আগে রাষ্ট্রপতিকে বহনকারী বিমানটি গতকাল বুধবার দিবাগত মধ্যরাতে ঢাকার উদ্দেশে লন্ডন ত্যাগ করে।

স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য জার্মানির রাজধানী বার্লিনের উদ্দেশে গত ২৯ অক্টোবর ভোররাতে ঢাকা ছাড়েন রাষ্ট্রপতি। সেখান থেকে ৫ নভেম্বর লন্ডনে পৌঁছান তিনি।
৭৮ বছর বয়সী রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ দীর্ঘদিন ধরে গ্লুকোমায় ভুগছিলেন। জাতীয় সংসদের স্পিকার থাকাকালে লন্ডন ও বার্লিনে তিনি স্বাস্থ্য পরীক্ষা করাতেন।