উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের পর শুরু হয় প্ল্যানারি অধিবেশন। প্রথমে টেকসই উন্নয়ন অভীষ্ট নিয়ে হয় অধিবেশন। এ অধিবেশনের আলোচনায় অংশ নিয়ে বেসরকারি গবেষণা প্রতিষ্ঠান সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগের (সিপিডি) বিশেষ ফেলো দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য বলেন, একটি সংকটময় সময়ে এ আলোচনা হচ্ছে। তিনি তাঁর বক্তব্যে আঞ্চলিক সহযোগিতা ও সংযুক্তির ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন। বিশেষ করে সুনীল অর্থনীতির ক্ষেত্রে সংযুক্তির বিষয়ে বেশি গুরুত্ব দেওয়ার কথা বলেন তিনি।

অস্ট্রেলিয়ার কার্টিন ইউনিভার্সিটির ড. আসিফ ইকবাল সিদ্দিকী জলবায়ু পরিবর্তনের বিষয়ে গুরুত্ব আরোপ করেন। তিনি বলেন, জলবায়ু পরিবর্তন প্রজন্মের চ্যালেঞ্জ।

বিশেষ করে দক্ষিণ এশিয়ার জন্য জলবায়ু পরিবর্তনের বিষয়টি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আর দারিদ্র্য হলো অভিন্ন শত্রু।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক সায়মা হকের সঞ্চালনায় এ অধিবেশনে আরও বক্তব্য দেন পাকিস্তানের সাবেক পররাষ্ট্রসচিব আইজাজ আহমেদ চৌধুরী।