পূর্বের শর্ত অনুযায়ী, খালেদা জিয়ার সাজা স্থগিতের মেয়াদ বাড়ছে জানিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, কাল সোমবার এ বিষয়ে প্রজ্ঞাপন জারি হবে।

এর আগে আইন মন্ত্রণালয় এ বিষয়ে মতামত দেয়। আগের শর্তেই তাঁর এই সাজার মেয়াদ স্থগিত থাকবে। এ সময় তিনি বিদেশে চিকিৎসা নিতে পারবেন না। তবে দেশের যেকোনো হাসপাতাল বা প্রতিষ্ঠানে চিকিৎসাসেবা নিতে বাধা থাকবে না।

দুর্নীতির দুই মামলায় সাজাপ্রাপ্ত খালেদা জিয়া ২০১৮ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি কারাবন্দী হন। দুই বছরের বেশি সময় কারাবন্দী ছিলেন সাবেক এই প্রধানমন্ত্রী। ২০২০ সালের ২৫ মার্চ মুক্তির পর থেকে খালেদা জিয়া গুলশানের ভাড়া বাড়িতেই অবস্থান করছেন। ওই সময় সরকারের নির্বাহী আদেশে প্রথমে ছয় মাসের জন্য শর্ত সাপেক্ষে মুক্তি পান খালেদা জিয়া। ‘দ্য কোড অব ক্রিমিনাল প্রসিডিউর’-এর ধারা-৪০১ (১)-এ দেওয়া ক্ষমতাবলে খালেদা জিয়ার দণ্ডাদেশ স্থগিত করা হয়। এরপর প্রতি ছয় মাস পরপর তাঁর সাজা স্থগিতের মেয়াদ বাড়ানো হচ্ছে। এবার নিয়ে ছয়বার তাঁর সাজা স্থগিতের মেয়াদ বাড়ছে।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন