মন্ত্রী বলেন, সরকারের পদক্ষেপের কারণে বাজারে এখন ফরমালিনের প্রয়োগ নেই। মৎস্য অধিদপ্তরের কর্মকর্তাসহ সরকারের অন্যান্য পর্যায়ের কর্মকর্তারা বিষয়টির দেখভাল করছেন। এ ছাড়া অনিরাপদ বা ক্ষতিকর কোনো মাছ বাজারে কিংবা অন্য কোথাও বিক্রি হবে না। যে মাছ ক্ষতিকর, তা উৎপাদনও যাতে কেউ করতে না পারে, সে বিষয়ে সরকার কাজ করছে।

মৎস্য খাতকে সমৃদ্ধ করতে যেখানে যেভাবে বিনিয়োগ দরকার, সেখানে সেভাবে প্রধানমন্ত্রী বিনিয়োগ করছেন উল্লেখ করে শ ম রেজাউল বলেন, এ খাতকে আরও সম্প্রসারিত করতে বেসরকারি উদ্যোক্তাদের এগিয়ে আসতে হবে। যাঁরা এগিয়ে আসবেন, রাষ্ট্র তাঁদের সব ধরনের সহায়তা দেবে।

এর আগে কৃষিমন্ত্রী মো. আব্দুর রাজ্জাককে সঙ্গে নিয়ে কেন্দ্রীয় মৎস্য মেলায় বিভিন্ন স্টল পরিদর্শন করেন শ ম রেজাউল করিম।

আজ সকালে গণভবন থেকে ভার্চ্যুয়ালি জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ-২০২২ ও কেন্দ্রীয় মৎস্য মেলার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আগামী তিন দিন এ মেলা চলবে।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন