জেলা প্রশাসক (ডিসি) সম্মেলনের প্রথম দিনে আজ মঙ্গলবার বিকেলে রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে অর্থ ও পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়–সম্পর্কিত বিষয়ে আলোচনায় ডিসিরা ওই সব অসংগতির চিত্র তুলে ধরেন। আলোচনা শেষে সাংবাদিকদের ব্রিফিংকালে প্রধানমন্ত্রীর অর্থনৈতিক বিষয়ক উপদেষ্টা মসিউর রহমান এসব কথা বলেন।

মসিউর রহমান বলেন, পরিকল্পনা সম্পর্কে ডিসিরা বলেছেন, দেখা যায়, অনেক সময় ভৌত অবকাঠামো হয়েছে, কিন্তু জনবল নিয়োগ হয়নি। ফলে অবকাঠামোগুলো ব্যবহার করা হয় না, নষ্ট হয়ে যায়। আরেকটি বলেছেন, কাছাকাছি কোনো জনবসতি নেই, কিন্তু একটি সেতু হয়তো আছে। এ রকম কিছু অসংগতির কথা বলেছেন। সম্মেলনে পরিকল্পনামন্ত্রী অসুস্থতার কারণে আসতে পারেননি। উপস্থিত ছিলেন পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী শামসুল আলম। বৈঠকে প্রতিমন্ত্রী বলেছেন, এই অসংগতিগুলো তাঁরাও লক্ষ করেছেন এবং এগুলো দূর করার জন্য সচেতন ও পদক্ষেপ নিয়েছেন।

প্রধানমন্ত্রীর অর্থনৈতিক বিষয়ক উপদেষ্টা মসিউর রহমান বলেন, পদ্মা সেতু হওয়ার পর দক্ষিণ–পশ্চিমাঞ্চলে যে নতুন সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে, সে জন্য নতুন প্রস্তাব ছিল। এর মধ্যে ছিল বরিশাল শহরে অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষের আঞ্চলিক অফিস করা, ভোলায় অর্থনৈতিক অঞ্চল করা এবং বরিশালের অন্য কোথাও অর্থনৈতিক অঞ্চল প্রতিষ্ঠা করা সম্ভব কি না।

এ ছাড়া নরসিংদীতে অর্থনৈতিক অঞ্চল করার প্রস্তাব এসেছে জানিয়ে মসিউর রহমান বলেন, এসব পরীক্ষা করে দেখা হবে। সম্ভাব্যতার যাচাইয়ের পর যদি দেখা যায় এগুলো করা সম্ভব, তাহলে করা হবে।

সম্মেলনে নির্বাচন নিয়ে কোনো আলোচনা হয়নি এবং কোনো প্রশ্নও উত্থাপিত হয়নি বলে জানান মসিউর রহমান।