আব্দুল মোমেন বলেন, তারা (পাকিস্তান) প্রতিটি দেশের পতাকা নিয়ে বিভিন্ন মিশনের পেজে ছবি আপলোড করেছে। শ্রীলঙ্কা, মালয়েশিয়া, ইন্দোনেশিয়া প্রভৃতি দেশের মিশনে তাদের অর্ধেক পতাকা, আর সেসব দেশের পতাকার ছবি এক সঙ্গে দিয়েছে। পররাষ্ট্রমন্ত্রী আরও বলেন, ‘আমরা তাদের (পাকিস্তান) বলেছি, এটা আমাদের পছন্দ নয়। তারা জানিয়েছে, তারা কোনো অসৎ উদ্দেশ্য নিয়ে এই ছবি প্রকাশ করেনি।’ সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার সময় তিনি তাঁর মুঠোফোনে বেশ কয়েকটি দেশের সঙ্গে পাকিস্তানের পতাকার ছবিও দেখান।

প্রসঙ্গত, ঢাকার পাকিস্তান হাইকমিশন গত বৃহস্পতিবার তাদের ফেসবুক পেজের কাভার ফটো হিসেবে আপলোড করে বাংলাদেশ ও পাকিস্তানের পতাকা। সেখানে গ্রাফিকস ডিজাইনের মাধ্যমে বাংলাদেশ ও পাকিস্তানের পতাকা একীভূত করে প্রকাশ করা হয়। এর পর থেকেই সামাজিক গণমাধ্যমে শুরু হয়ে যায় তোলপাড়।

বাংলাদেশের জাতীয় পতাকার সঙ্গে পাকিস্তানের পতাকা জুড়ে দিয়ে ঢাকার পাকিস্তান হাইকমিশন যে ছবি প্রকাশ করেছে, গত শনিবার বিকেলে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ঢাকার পাকিস্তান হাইকমিশনকে সেই ছবি নামিয়ে ফেলতে বলেছিল।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন