বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

এই নিবন্ধন নেওয়ার ফলে মাইক্রোসফট এখন থেকে বাংলাদেশে ব্যবসা করে এমন একটি ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান হিসেবে ভ্যাটের রিটার্ন দেবে। ভ্যাট বিভাগও তাদের রিটার্নগুলো নিরীক্ষা করতে পারবে।

ঢাকা দক্ষিণ ভ্যাট কমিশনারেট সূত্রে জানা গেছে, মাইক্রোসফট বিজ্ঞাপন প্রচারের পাশাপাশি সফটওয়্যার ও অ্যাপস বিক্রি করে থাকে। এ ছাড়া ইয়াহুর কার্যক্রম মাইক্রোসফটের সঙ্গে যুক্ত। সে জন্য ইয়াহু যেসব সেবা দেয়, তার বিপরীতেও ভ্যাট দিতে হবে।

অবশ্য এত দিন মাইক্রোসফটের সেবার বিপরীতে ভ্যাট কেটে রাখা হতো। মাইক্রোসফটের বিলের টাকা বিদেশে পাঠানোর সময় ভ্যাটের টাকা কেটে রাখা হতো। ব্যাংক কর্তৃপক্ষ স্বয়ংক্রিয়ভাবে ১৫ শতাংশ ভ্যাট কেটে রেখেছে। ভ্যাট কেটে না রাখলে বাংলাদেশ ব্যাংক বিদেশে ওই প্রতিষ্ঠানের কাছে টাকা পাঠানোর অনুমতি দিত না। পার্থক্য হচ্ছে, এখন থেকে তাকে ভ্যাট রিটার্ন দিতে হবে। তাতে মাইক্রোসফটকে জবাবদিহির আওতায় আনা যাবে।

প্রতি মাসে রিটার্ন জমা দিয়ে কত টাকার সেবা এ দেশে বিক্রি হলো এবং তার বিপরীতে কত টাকা ভ্যাট দেওয়া হয়েছে, তা জানাতে হবে মাইক্রোসফট কর্তৃপক্ষকে।
এর আগে জুন মাসে ফেসবুক এবং মে মাসে গুগল ও আমাজন ভ্যাট নিবন্ধন নিয়েছে।

বাণিজ্য থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন