default-image

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় গ্রেপ্তার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) পরিচালক মিনহাজ মান্নান জামিন পেয়েছেন। গতকাল সোমবার ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট (সিএমএম) আদালত এই আদেশ দেন।

গত ৫ মে র‌্যাব-৩-এর ওয়ারেন্ট অফিসার মো. আবু বকর সিদ্দিক রমনা থানায় কার্টুনিস্ট আহমেদ কবির কিশোর, মোস্তাক আহম্মেদ, দিদারুল ইসলাম ভূঁইয়া, মিনহাজ মান্নানসহ ১১ জনের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করেন।

বিজ্ঞাপন

ওই মামলায় গ্রেপ্তার হয়ে কারাগারে আছেন কার্টুনিস্ট আহমেদ কবির কিশোর, ব্যবসায়ী ও লেখক মুস্তাক আহমেদ, রাষ্ট্রচিন্তার সদস্য দিদারুল ইসলাম ভূঁইয়া।
কার্টুনিস্ট আহমেদ কবির কিশোর, মুস্তাক আহম্মেদসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে আই এম বাংলাদেশি (ইংরেজি হরফে লেখা) নামের একটি ফেসবুক পেজ থেকে ‘রাষ্ট্রবিরোধী পোস্ট, মহামারি করোনা, সরকারদলীয় বিভিন্ন নেতার কার্টুন দিয়ে গুজব ছড়িয়ে জনগণের মধ্যে বিভ্রান্তি সৃষ্টির’ অভিযোগ আনা হয়। এজাহারে র‌্যাব দাবি করে, মুস্তাক আহম্মেদকে জিজ্ঞাসাবাদে দিদারুল ইসলাম ভূঁইয়া ও মিনহাজ মান্নানের সম্পৃক্ততা পায় তারা।

বিজ্ঞাপন

আই এম বাংলাদেশি পেজটি চালানোর দায়ে যে ছয়জনকে আসামি করা হয় তাঁরা হলেন সায়ের জুলকারনাইন, আহমেদ কবির কিশোর, আশিক ইমরান, ফিলিপ শুমাখার, স্বপন ওয়াহিদ ও মুস্তাক আহমেদ। হোয়াটসঅ্যাপ ও মেসেঞ্জারে তাঁদের সঙ্গে ব্যক্তিগত কথোপকথনের জেরে আসামি হন প্রবাসী সাংবাদিক তাসনীম খলিল ও সাহেদ আলম, ব্লগার আসিফ মহিউদ্দীন, দিদারুল ইসলাম ভূঁইয়া ও মিনহাজ মান্নান।

মন্তব্য পড়ুন 0