বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

রোববার সিলেট চেম্বার কার্যালয়ে নির্বাচন বোর্ডের চেয়ারম্যান মো. আবদুল জব্বার নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করেন। এ সময় নির্বাচনী বোর্ডের দুই সদস্য আইনজীবী মিছবাউর রহমান আলম ও সিরাজুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন।

১১ ডিসেম্বর নগরীর ধোপাদীঘিরপার এলাকার ইউনাইটেড কমিউনিটি সেন্টারে ভোট গ্রহণ করা হবে বলে জানায় নির্বাচনী বোর্ড। ভোট গ্রহণ শুরু হবে ১১ ডিসেম্বর সকাল নয়টায়, চলবে বিকেল চারটা পর্যন্ত। ভোট গণনার পর ওই দিনই নির্বাচনের প্রাথমিক ফলাফল ঘোষণা করা হবে। এরপর ১৩ ডিসেম্বর নির্বাচিত পরিচালকের মধ্য থেকে সভাপতি, সিনিয়র সহসভাপতি ও সহসভাপতি নির্বাচিত করা হবে।

সিলেট চেম্বারের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, নির্বাচনে ভোটার হওয়ার জন্য সদস্যদের অবশ্যই নির্বাচনের ৬০ দিন আগে, অর্থাৎ আগামী ১১ অক্টোবরের মধ্যে সদস্যপদ নবায়ন করতে হবে। নির্বাচনী তফসিল অনুযায়ী, প্রাথমিক ভোটার তালিকা প্রকাশ করা হবে ২০ অক্টোবর। প্রাথমিক ভোটার তালিকার বিরুদ্ধে আপত্তি দাখিলের শেষ তারিখ ২৫ অক্টোবর। আর চূড়ান্ত ভোটার তালিকা প্রকাশ করা হবে ৩১ অক্টোবর।
প্রার্থীরা মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করতে পারবেন ৬ নভেম্বর থেকে। মনোনয়নপত্র সংগ্রহের শেষ তারিখ ৮ নভেম্বর। মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ তারিখ ১০ নভেম্বর এবং মনোনয়নপত্র বাতিলের বিরুদ্ধে আপিলের শেষ তারিখ ১৮ নভেম্বর। বৈধ প্রার্থীর চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ করা হবে ২৮ নভেম্বর। নির্বাচনের ফলাফলের বিরুদ্ধে আপিল করার বিধান আছে। গঠনতন্ত্র অনুযায়ী, কোনো প্রার্থী বা ভোটার নির্বাচনের ফলাফলের বিরুদ্ধে আপিল করতে পারবেন ১৪ ডিসেম্বর। আপিলের তারিখের পর ২০ ডিসেম্বর চূড়ান্ত ফলাফল ঘোষণা করা হবে।

নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা হওয়ায় সিলেট চেম্বারের ভোটারদের নিজ নিজ ভোটার আইডি কার্ড আগামী ২১ নভেম্বর থেকে ৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত চেম্বার অফিস চলাকালীন মেম্বারশিপ আইডি কার্ড প্রদর্শনপূর্বক সংগ্রহ করতে বলা হয়েছে।

বাণিজ্য থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন