এ উদ্যোগে এখন পর্যন্ত ১২টি প্রতিষ্ঠান যুক্ত হয়েছে, যারা একে অপরের মধ্যে অর্থ বিনিময় করতে পারবে। এখন পর্যন্ত যুক্ত হয়েছে মোবাইল ব্যাংকিং সেবা বিকাশ, ডাচ্‌-বাংলা ব্যাংকের রকেট, ইসলামী ব্যাংকের এমক্যাশ, বেসরকারি ব্র্যাক ব্যাংক, ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক, মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক, ইস্টার্ণ ব্যাংক, মিডল্যান্ড ব্যাংক, আল-আরাফাহ্‌ ইসলামী ব্যাংক, সিটি ব্যাংক, পূবালী ব্যাংক ও সরকারি সোনালী ব্যাংক। 

এই সেবা নিয়ে অনেকের মধ্যে আগ্রহ তৈরি হলেও চালুর পর তা কিছুটা কমেছে। কারণ, শুরুতেই দেশের বড় এমএফএস ও ব্যাংক এতে যুক্ত হয়নি। আবার মাশুলের জন্য অনেকের মধ্যে অনাগ্রহ আছে। 

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের মুখপাত্র জি এম আবুল কালাম আজাদ বলেন, বিকাশ থেকে লেনদেনে সমস্যা হচ্ছে। এ নিয়ে কাজ চলছে। তবে অন্য প্রতিষ্ঠান থেকে লেনদেন চলছে।