ব্রিটিশ দৈনিক গার্ডিয়ান–এর এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রাশিয়ার দ্বিতীয় বৃহৎ ব্যাংক ভিটিবির সহযোগী প্রতিষ্ঠান ভিটিবি ক্যাপিটাল। এটির সম্পদমূল্য প্রায় সাড়ে ১৫ হাজার কোটি পাউন্ড। লন্ডন স্টক এক্সচেঞ্জ গ্রুপ গতকাল শুক্রবার প্রতিষ্ঠানটির লেনদেন স্থগিতের সিদ্ধান্ত নিয়েছে, যা তাৎক্ষণিক কার্যকরও করা হয়েছে। গার্ডিয়ান–এর প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, যুক্তরাজ্যের বাজার থেকে যাতে রাশিয়ার কোনো কোম্পানি অর্থ সংগ্রহ করতে না পারে, সে জন্য আগামী সপ্তাহে নতুন আইন পাস হতে পারে।

এর আগে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন গত বৃহস্পতিবার রাশিয়ার বেশ কিছু প্রতিষ্ঠান ও ব্যক্তির ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের ঘোষণা দেন। সেই সঙ্গে যুক্তরাজ্যে থাকা রাশিয়ার সব ব্যাংকের সম্পদ বাজেয়াপ্তের ঘোষণা দেন তিনি। সম্পদ বাজেয়াপ্তের তালিকায় ভিটিবি ব্যাংকও রয়েছে। ভিটিবি ব্যাংকটি রাশিয়ার রাষ্ট্রমালিকানাধীন ব্যাংক।

এদিকে লন্ডন স্টক এক্সচেঞ্জে শেয়ার লেনদেন স্থগিত করার প্রতিক্রিয়ায় ভিটিবির পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘কয়েক বছর ধরে এ ধরনের নিষেধাজ্ঞা আমাদের জন্য বাস্তবতা। তাই নতুন করে রাজনৈতিকভাবে রুশবিরোধী অবস্থান থেকে এ ধরনের নিষেধাজ্ঞা আরোপের ঘটনায় আমরা মোটেই আশ্চর্য হইনি।’

বিশ্ববাণিজ্য থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন