default-image

করোনার সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কের নয়টি এলাকার স্কুল সাময়িকভাবে বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। নিউইয়র্কের মেয়র বিল ডি ব্লাজিও গতকাল সোমবার ব্রুকলিন ও কুইন্সের এসব এলাকার সরকারি–বেসরকারি স্কুলগুলো বন্ধের এ ঘোষণা দেন।

সাত দিন ধরে এসব অঞ্চলে সংক্রমণের হার তিন শতাংশের বেশি। কিন্তু দুটি এলাকায় সাত দিন ধরে সংক্রমণের হার আট শতাংশের বেশি বলে জানা গেছে। আগামীকাল বুধবার থেকে এ ঘোষণা কার্যকর হবে। কয়েক দিন আগেই নিউইয়র্কের স্কুলগুলো খুলেছিল।

এদিকে তিন দিন হাসপাতালে কাটিয়ে আসার পর মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প আমেরিকানদের বাইরে বেরিয়ে আসতে বলেছেন। তিনি বলেছেন, করোনাকে ভয় করবেন না। ট্রাম্প কোভিড-১৯ মহামারিকে আমলে না নিলেও বিশ্বজুড়ে ১০ লাখের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রেই দুই লাখের বেশি মানুষ মারা গেছেন করোনায় আক্রান্ত হয়ে। করোনাকে ভয় না পাওয়ার জন্য জনগণের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন ট্রাম্প।

বিজ্ঞাপন

সিএনএনের এক খবরে বলা হয়েছে, গতকাল সোমবার হোয়াইট হাউসে ফিরে ছবি তোলার জন্য দাঁড়িয়ে ট্রাম্প তার সার্জিক্যাল মাস্ক খুলে ফেলেন। হোয়াইট হাউসে ফেরার পর তার অনুভূতি কী, সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নে ট্রাম্প বলেন, সত্যিকারের জন্য ভালো।

রাজধানী ওয়াশিংটন ডিসির নিকটবর্তী সামরিক হাসপাতাল থেকে হেলিকপ্টারযোগে হোয়াইট হাউসে ফেরেন ট্রাম্প। ফেরার সময় সাদা রঙের সার্জিক্যাল মাস্ক পরা ছিলেন তিনি। কিন্তু হোয়াইট হাউসে সিঁড়ি দিয়ে বারান্দায় ওঠার পর তিনি মাস্ক খুলে ফেলে ছবি তোলার জন্য দাঁড়ান, স্যালুট দেন এবং বুড়ো আঙুল উঁচিয়ে এমন ভঙ্গি করেন যে সব কিছু ঠিক আছে।

ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে, ট্রাম্প ফিরে হোয়াইট হাউসে ঢোকেন। সে সময়ও মাস্কটি তাঁর পকেটে ঢোকানো ছিল।
গত শুক্রবার করোনা ধরা পড়ার পর ডোনাল্ড ট্রাম্পকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

মন্তব্য করুন