default-image

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে পরীক্ষা নেওয়ার দাবিতে মানববন্ধন করেছেন কয়েকটি বিভাগের শিক্ষার্থীরা। স্বাস্থ্যবিধি মেনে স্নাতক চতুর্থ বর্ষের শেষ সেমিস্টারের পরীক্ষার দাবিতে আজ রোববার বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ মিনারে এ কর্মসূচি পালন করা হয়।

মানববন্ধন শেষে শিক্ষার্থীরা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য মীজানুর রহমানের সঙ্গে দেখা করে পরীক্ষা নেওয়ার অনুরোধ জানান। মানববন্ধনে শিক্ষার্থীরা বলেন, গত মার্চে বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধের আগেই অধিকাংশ বিভাগের ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের পরীক্ষা শেষ হয়ে ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে। কিন্তু ইংরেজি, নৃবিজ্ঞান, গণিত, আইন বিভাগসহ কিছু বিভাগের পরীক্ষা এখনো অনুষ্ঠিত হয়নি। বিভাগগুলোর পরীক্ষা ও ফলাফল ২০১৯ সালের মধ্যেই শেষ করার কথা ছিল। কিন্তু সেশনজট ও করোনা মহামারির কারণে তা এখনো হয়নি।

ইংরেজি বিভাগের শিক্ষার্থী রবিউল আলম প্রথম আলোকে বলেন, উপাচার্য তাঁদের বলেছেন, সরকারি নির্দেশনার বাইরে গিয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়ার সুযোগ নেই। তবে আটকে থাকা পরীক্ষাগুলো যাতে সহজে নেওয়া যায় সে জন্য একটি সফটওয়্যার তৈরি করা হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনসহ (ইউজিসি) সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ অনুমতি দিলে নভেম্বরের শেষ বা ডিসেম্বরের মধ্যে ওই সফটওয়্যারের মাধ্যমে পরীক্ষা নেওয়া সম্ভব হবে।

বিজ্ঞাপন

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় রেজিস্ট্রার ওহিদুজ্জামান প্রথম আলোকে বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ডিজিটাল ইউনিভার্সিটির উপাচার্য মুনাজ আহমেদের নেতৃত্বে একটি সফটওয়্যার তৈরি করা হয়েছে। যা দিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির অনলাইন পরীক্ষা নেওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে। এটি আন্তর্জাতিক মান সম্পন্ন। অনুমতি পেলে এই সফটওয়্যার দিয়েই অভ্যন্তরীণ সব পরীক্ষা নেওয়া যাবে। তিনি আরও বলেন, যদি সংশ্লিষ্ট বিভাগের শিক্ষার্থীরা স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষা দিতে পারেন এবং চেয়ারম্যান ও পরীক্ষা নিয়ন্ত্রকসহ সংশ্লিষ্টদের অনুমতি মেলে তাহলে পরীক্ষাগুলো দ্রুত নেওয়া যাবে।

মন্তব্য পড়ুন 0