default-image

গুচ্ছ ভিত্তিতে অনুষ্ঠেয় দেশের ২০টি সাধারণ এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষার তারিখসহ বিভিন্ন বিষয় চূড়ান্ত করা হয়েছে। আগামী ১৯ জুন মানবিক বিভাগের, ২৬ জুন বাণিজ্যের ও ৩ জুলাই বিজ্ঞান বিভাগের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। প্রতিটি বিভাগে সর্বোচ্চ দেড় লাখ ভর্তি–ইচ্ছুক শিক্ষার্থী ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নিতে পারবেন।

এভাবে ভর্তি কার্যক্রম কীভাবে হবে, তার বিস্তারিত নির্দেশিকা প্রকাশ করা হয়েছে। গুচ্ছভুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর ভর্তি পরীক্ষাসংক্রান্ত ওয়েবসাইটে এ নির্দেশিকা প্রকাশ করা হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ে এবার প্রথমবারের মতো গুচ্ছ ভিত্তিতে ভর্তি পরীক্ষা হতে যাচ্ছে। এর মাধ্যমে একজন শিক্ষার্থী একটিমাত্র পরীক্ষা দিয়েই (মেধার ভিত্তিতে) যেকোনো বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির সুযোগ পাবেন। তিন বিভাগের শিক্ষার্থীদের জন্য আলাদা আলাদা তিনটি পরীক্ষা হবে।

বিজ্ঞাপন

ভর্তি পরীক্ষার জন্য প্রাথমিক আবেদন নেওয়া শুরু হবে আগামী ১ এপ্রিল। চলবে ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত। প্রাথমিক আবেদনের ফল প্রকাশ করা হবে ২৩ এপ্রিল। প্রাথমিক আবেদনকারীদের মধ্যে মেধার ভিত্তিতে (এসএসসি ও এইচএসসির ফল) চূড়ান্ত প্রার্থী বাছাই করা হবে, যাঁরা পরীক্ষায় অংশ নেওয়ার সুযোগ পাবেন। চূড়ান্ত প্রার্থীরা আবেদন করবেন ২৪ এপ্রিল থেকে ২৫ মে পর্যন্ত। ৩১টি কেন্দ্রে এ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। প্রার্থীরা ন্যূনতম পাঁচটি কেন্দ্র পছন্দের তালিকায় রাখতে পারবেন।

দেড় ঘণ্টা সময়ে মোট ১০০ নম্বরের পরীক্ষা হবে। প্রতিটি বিভাগের পরীক্ষার্থীদের প্রাপ্ত নম্বরের ভিত্তিতে মেধাক্রম প্রস্তুত করে ওয়েবসাইটে (gstadmission.org) প্রকাশ করা হবে। এরপর প্রতিটি বিশ্ববিদ্যালয় আলাদাভাবে ভর্তি বিজ্ঞপ্তিতে নিজেদের শর্ত উল্লেখ করে আবেদন আহ্বান করবে এবং মেধাক্রম অনুসারে ভর্তিপ্রক্রিয়া সম্পন্ন করবে।

ভর্তি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন