কঙ্গনার ভাঙা বাড়ি ও টুইটযুদ্ধ
কঙ্গনার ভাঙা বাড়ি ও টুইটযুদ্ধ সংগৃহীত

একের পর এক বলিউড তারকারা এক হাত দেখে নিচ্ছেন কঙ্গনা রনৌতকে। বাদ গেলেন না অভিনয়শিল্পী প্রকাশ রাজও। তিনিও কঙ্গনার কথাবার্তা আর চালচলন নিয়ে কটাক্ষ করলেন। তবে একটু অন্যভাবে। মজা করে বললেন, ‘মনিকর্ণিকা: দ্য কুইন অব ঝাঁসি’ সিনেমায় অভিনয় করে কঙ্গনা নিজেকে রানি লক্ষ্মীবাই ভাবছেন। তাহলে শাহরুখ খান, আমির খান, দীপিকা পাডুকোন, হৃতিক রোশান, অজয় দেবগণ, বিবেক ওবেরয়—তাঁরা কী?

default-image
বিজ্ঞাপন
‘একটা সিনেমা যদি কঙ্গনাকে রানি লক্ষ্মীবাই বানিয়ে দেয়, তাহলে শাহরুখ অশোক, আমির মঙ্গল পান্ডে, দীপিকা পদ্মাবতী, অজয় ভগত সিং, হৃতিক আকবর আর বিবেক মোদিজি।’
প্রকাশ রাজ, বলিউড অভিনেতা

শাহরুখ খান ‘অশোক’ সিনেমায় দেখা দিয়েছেন সম্রাট অশোকের ভূমিকায়। আমির খান বড় পর্দায় হয়েছেন স্বাধীনতা আন্দোলনের পুরোধা ব্যক্তিত্ব, বিপ্লবী মঙ্গল পান্ডে। চিতোরের রানি পদ্মাবতীর ভূমিকায় দেখা দিয়েছেন দীপিকা।

‘যোধা–আকবর’ ছবিতে হৃতিক হয়েছেন আকবর। অজয় দেবগণ হয়েছেন ভগত সিং। আর বড় পর্দায় ভারতের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ভূমিকায় দেখা দিয়েছেন বিবেক ওবেরয়। প্রকাশের দাবি, তাহলে এই বলিউড তারকারাও ওই ঐতিহাসিক চরিত্রগুলো। তিনি টুইটারে লেখেন, ‘একটা সিনেমা যদি কঙ্গনাকে রানি লক্ষ্মীবাই বানিয়ে দেয়, তাহলে শাহরুখ অশোক, আমির মঙ্গল পান্ডে, দীপিকা পদ্মাবতী, অজয় ভগত সিং, হৃতিক আকবর আর বিবেক মোদিজি।’

default-image
বিজ্ঞাপন
‘সম্মানিত প্রকাশ রাজ, আমি আমার সম্পদ হারিয়েছি। তিলে তিলে গড়া বাড়িটি হারিয়েছি। আপনার জন্য সিনেমার চরিত্র নিয়ে মজা করা সহজ। আজ যদি আপনার বাড়িটি ভাঙত, এ কথা বলতে পারতেন?’
কঙ্গনা রনৌত

কড়া জবাব দিতে ভোলেননি কঙ্গনাও। টুইটারে প্রকাশ রাজকে ট্যাগ করে লিখেছেন, ‘সম্মানিত প্রকাশ রাজ, আমি আমার সম্পদ হারিয়েছি। তিলে তিলে গড়া বাড়িটি হারিয়েছি। আপনার জন্য সিনেমার চরিত্র নিয়ে মজা করা সহজ। আজ যদি আপনার বাড়িটি ভাঙত, এ কথা বলতে পারতেন?’ আরেকজন কঙ্গনার পক্ষ নিয়ে লিখেছেন, ‘স্যার, আমার বিশ্বাস, আপনি একজন ভালো মানুষ। কিন্তু যেটা নিয়ে মজা করলেন, সেটা আদৌ হাসি–তামাশার বিষয় নয়।’

উল্লেখ্য, বুধবার কঙ্গনার মুম্বাই পৌঁছানোর আগেই বৃহণ মুম্বাই পুরসভা অভিনেত্রীর বান্দ্রার অফিস ভাঙতে শুরু করে। যার জেরে এবার আদালতের কাঠগড়ায় মুম্বাই সিটি করপোরেশন। যথাযথ তথ্য-প্রমাণ না দেখাতে পারলে মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরের প্রশাসনকে বলিউড অভিনেত্রীর অফিস মেরামত করে দিতে হতে পারে।

default-image
বিজ্ঞাপন

আজ সোমবার মানালি ফিরে গেলেন কঙ্গনা। তার আগে টুইটে কঙ্গনা আবারও প্রতিবাদ করে লিখেছেন, ‘অত্যন্ত মন খারাপ নিয়ে আমি এবার মুম্বাই ছাড়ছি। যেভাবে কয়েক দিন ধরে আমাকে বারবার ভয় দেখানো হয়েছে, কুরুচিকর আক্রমণের নিশানা করা হয়েছে, আমার অফিসের পর আমার বাড়িও ভাঙার চেষ্টা করা হয়েছে, সশস্ত্র নিরাপত্তারক্ষীরা আমার চারপাশে সব সময় সজাগ ও সতর্ক ছিলেন, অবশ্যই বলব, মুম্বাইয়ের সঙ্গে পাকিস্তান অধিকৃত কাশ্মীরের তুলনা করে একদম ঠিক করেছি।

default-image
মন্তব্য পড়ুন 0