আজ মঙ্গলবার সকালে তিনি মুম্বাই থেকে কলকাতা বিমানবন্দরে নামলেন। সেখান থেকে চলে যান ভবানীপুর এডুকেশন সোসাইটিতে। সেখানেই শিক্ষার্থীদের সঙ্গে মিলিত হলেন তাঁরা। কথা বললেন। বললেন, তাঁদের নতুন ছবি ‘ভেড়িয়া’র কথাও।

তারপর সেখান থেকে ছুটে গেলেন কলকাতার প্রাণকেন্দ্র ধর্মতলায়। চড়লেন কলকাতার ঐতিহ্যবাহী হলুদ ট্যাক্সিতে। আরও চড়লেন কলকাতার শতবর্ষের ঐতিহ্য ধরে রাখা ট্রামে। বললেন, ‘সত্যিই ট্রামে চড়ার অনুভূতি আলাদা। আমরাও কলকাতার ট্রামে চড়ে মুগ্ধ। বরাবরই আমাদের কাছে এক ভালোবাসা ও ভালো লাগার শহর কলকাতা। তাই আজও ভালো লাগে আমাদের কলকাতাকে। কলকাতার মানুষ বড়ই ছবিপ্রেমী।’

এরপর বরুণ ধাওয়ান আর কৃতি শ্যানন তাঁদের দলবল নিয়ে ছুটে আসেন কলকাতার ঐতিহ্যবাহী আইটিসি রয়েল বেঙ্গল হোটেলে। সেখানে ‘ভেড়িয়া’ ছবির প্রচারের জন্য এক সংবাদ সম্মেলনে যোগ দেন তাঁরা। সেখানে আরও উপস্থিত ছিলেন কলকাতার প্রখ্যাত অভিনেতা প্রসেনজিৎ।

সংবাদ সম্মেলনে বরুণ ধাওয়ান আর কৃতি শ্যানন বলেন, ‘কলকাতা আমাদের ভালো লাগার শহর। কলকাতার মানুষও ছবিপ্রেমী। আমরা আশা করছি, কলকাতার মানুষের মন জয় করতে পারবে আমাদের নতুন ছবি “ভেড়িয়া”। যদিও হিন্দিতে ছবির নাম বলা হয় “ভেদিয়া”।’

ছবিটি হিন্দি ভাষায় নির্মিত। ছবিটি মুক্তি পাবে ২৫ নভেম্বর। ছবিটিতে অভিনয় করেছেন বরুণ ধাওয়ান, কৃতী শ্যানন, দীপক দব্রিয়াল, অভিষেক ব্যানার্জি, শারিখ খান, সরওয়ার আলী পালিজো প্রমুখ অভিনেতা। পরিচালনা করেছেন অমর কৌশিক আর প্রযোজনা করেছেন দীনেশ ভিজন।