এ বছর অ্যামাজন প্রাইমে মুক্তি পাওয়া ওয়েব সিরিজ ‘সুরাল: দ্য ভরটেক্স’ দিয়ে ভারতজুড়ে আলোচিত হন। সিরিজটির স্রষ্টা ‘বিক্রম বেদা’খ্যাত পরিচালক দম্পতি পুষ্কর–গায়ত্রী। চলতি বছরই মুক্তির অপেক্ষায় আছে তাঁর সাতটি সিনেমা। এর মধ্যে একটি ‘দ্য গ্রেট ইন্ডিয়ান’ কিচেন। গত বছর মুক্তি পাওয়া একই নামের মালয়ালম ছবির তামিল রিমেক। ছবির ট্রেলার শেয়ার করে অভিনেত্রী টুইট করেছেন, ‘এবার একটু আত্মার সন্ধান করা যাক।’ পুরুষতান্ত্রিক পরিবার ব্যবস্থা নিয়ে ছবিটিতে কড়া বার্তা দেওয়া হয়েছে। ঐশ্বরিয়া মনে করছেন, ছবিটি হতে যাচ্ছে তাঁর ক্যারিয়ারের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ কাজ।

এ ছাড়া মুক্তি পেয়েছে তাঁর আরেকটি বহুল প্রতীক্ষিত সিনেমা ‘ফারহানা’র ফার্স্ট লুক। নারীপ্রধান এ ছবিতেও প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন তিনি। মুক্তির অপেক্ষায় থাকা তাঁর আলোচিত সিনেমাগুলোর মধ্যে আছে মালয়ালম তারকা টোভিনো থমাসের বিপরীতে আরেকটি ছবি।

ভিন্নধর্মী সিনেমা নির্বাচনের জন্য বরাবরই অবশ্য প্রশংসিত ঐশ্বরিয়া। নতুন ছবিতে চুক্তিবদ্ধ হওয়ার আগে কোন বিষয়টি মনে রাখেন? এ প্রসঙ্গে অভিনেত্রী বলেন, ‘গল্পটি শোনার সময় সেটা যদি আমার কল্পনায় আসে, বর্ণনার সঙ্গে আমিও যদি ছুটতে থাকি, মনে হয়, ছবিটি করা উচিত।’ নারীপ্রধানসহ বৈচিত্র্যময় সিনেমায় অভিনয় প্রসঙ্গে ঐশ্বরিয়া বলেন, এটা মোটেই কাকতালীয় নয়। তিনি পরিকল্পনায় বিশ্বাসী। ‘ভালো কাজ করব’—এ পরিকল্পনায় স্থির থেকেই এ পর্যন্ত এসেছেন তিনি।