চিত্রনির্মাতা তথা পরিচালক সাজিদ খানের বিরুদ্ধে তিনি যৌন হয়রানির অভিযোগ এনে পুলিশের কাছে অভিযোগ করেছিলেন। এখন ‘বিগ বস ১৬’-এর প্রতিযোগী হয়ে এসেছেন সাজিদ। বিগ বসের ঘরে সাজিদকে দেখে আবার শার্লিন ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। তাঁর মতে, ‘মি টু’ অভিযুক্ত সাজিদ কী করে বিগ বসে অংশগ্রহণ করেন। শার্লিন ও সাজিদের মধ্যে হঠাৎই ঢুকে পড়েছেন রাখি। বলিউডের এই ‘ড্রামা কুইন’ সাজিদকে নিজের ভাই বলে সম্বোধন করে শার্লিনের উদ্দেশে বলেছেন, ‘এই মেয়ে ছয় মাস পরপর কারও না কারও ওপর ধর্ষণের অভিযোগ আনে। তারকাদের ফাঁসিয়ে পর্নো ভিডিও বানিয়ে তাঁদের ব্ল্যাকমেল করে।’

রাখির এ মন্তব্য শুনে মোটেও চুপ করে বসে থাকার পাত্রী নন শার্লিন। তিনিও রাখিকে পাল্টা জবাব দিয়েছেন। শার্লিন বলেছেন, ‘রাখি সাওয়ান্ত কী করে? সে অভিজাত হোটেলে গিয়ে ব্যক্তিগত ইভেন্টের আয়োজন করে বা করায়। সাবস্ক্রিপশনে প্রেমিক আর স্বামী বানায়। এরপর কী করে? আধা বা এক বছর ধরে সেই ভাড়া করা প্রেমিক আর স্বামীকে চুষে চুষে ভিখারি করে ছাড়ে। তারপর তাঁরা পালিয়ে যান। এটাই হলো তার বাস্তবতা।’

এর আগেও রাখিকে আক্রমণ করেছেন শার্লিন। তিনি রাখিকে আক্রমণ করে বলেছিলেন, ‘সে ৩১ কিলোর প্রসাধন লাগায়। আর নিজের টাক মাথাকে লুকানোর জন্য “হেয়ার এক্সটেনশন”, আর পরচুলা ব্যবহার করে। তিন-চার মাস পরপর বয়ফ্রেন্ড বদল করে সে। আর ছয় মাস অন্তর স্বামী বদলে ফেলে। আমি কখনো কি প্রশ্ন করেছি, এ রকম কেন করো?’

শার্লিন ‘মি টু’ অভিযুক্ত সাজিদ খানের বিষয়েও কথা বলেছেন। তিনি বলেছেন, ‘আমি আন্দোলন শুরু করতে চলেছি। মুখ্যমন্ত্রী একনাথ শিন্দে স্যারের সঙ্গে দেখা করব। খুব শিগগির রাজ্যপাল স্যারের সঙ্গে দেখা করব। অভিযুক্ত সাজিদ খানকে যত দিন না পর্যন্ত কারাবন্দী করা হচ্ছে, এই লড়াই তত দিন পর্যন্ত চালিয়ে যাব।’