ভারত থেকে তথ্যচিত্র বিভাগে আগে কখনো একসঙ্গে দুটি চলচ্চিত্র মনোনয়ন পায়নি। সংক্ষিপ্ত তালিকায় জায়গা পাওয়ার পর থেকে তথ্যচিত্র দুটি নিয়ে আলোচনা চলছিল। ‘অল দ্য ব্রিদস’ এর আগে কান চলচ্চিত্র উৎসবে ‘গোল্ডেন আই’ (ল’অয়েল ডি’অর) বিভাগে পুরস্কৃত হয়।

প্রবাসী বাঙালি পরিচালক শৌনক তাঁর ছবিটি তৈরি করেছেন দিল্লির পরিবেশের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকর বাতাস এবং ক্রমবর্ধমান সহিংসতার অন্ধকারের মধ্যে পাখিদের টিকে থাকার গল্প নিয়ে। এই ছবির কেন্দ্রে মোহাম্মদ সাউদ আর নাদিম শেহজাদ দুই ভাই। দিল্লির ওয়াজিরাবাদে তাঁদের বাড়ি। যেখানে বেজমেন্টে তাঁরা গড়ে তুলেছেন আহত পাখিদের জন্য একটি হাসপাতাল। বিশেষ করে বিলুপ্তপ্রায় কালো চিলদের উদ্ধার ও চিকিৎসা করেন তাঁরা। সেই সূত্রে নতুন মোড় নেয় গল্পে।

‘দ্য এলিফ্যান্ট হুইসপারস’-এ দেখানো হয়েছে আদিবাসী এক দম্পতি ও একটি অনাথ হাতির গল্প। এই দম্পতি হাতিটিকে পাওয়ার পরে তার যত্ন নেন, তাকে খাবার দিয়ে বাঁচিয়ে রাখাসহ সব দায়িত্ব পালন করেন। ৪১ মিনিটের এই তথ্যচিত্রে একসময় দেখা যাবে, হাতির মায়ার বন্ধনে জড়িয়ে যান এই আদিবাসী দম্পতি। এর মধ্য দিয়ে পরিচালক দক্ষিণ ভারতের বন্যদের প্রতি ভালোবাসা ও বন্য পশুর সৌন্দর্য তুলে ধরেছেন, যা ভাগাভাগি করে নিয়েছেন এই আদিবাসী দম্পতি। এটি পরিচালনা করেছেন কার্তিকি গনসালভেস।

অস্কারের ‘আন্তর্জাতিক ফিচার ফিল্ম’ শাখায় সংক্ষিপ্ত তালিকায় জায়গা পাওয়া আরেক ভারতীয় সিনেমা ‘লাস্ট ফিল্ম শো’ চূড়ান্ত মনোনয়নে জায়গা পায়নি। সেরা সিনেমা, সেরা পরিচালকসহ মোট ২৩ বিভাগে মনোনয়নের তালিকা ঘোষণা করেছে অস্কার কর্তৃপক্ষ। মনোনয়নের তালিকা থেকে কার হাতে উঠবে কাঙ্ক্ষিত পুরস্কার, তা আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা করা হবে আগামী ১২ মার্চ। যুক্তরাষ্ট্রের লস অ্যাঞ্জেলেসের ডলবি থিয়েটারে আলোঝলমলে আয়োজনে বিজয়ী ব্যক্তিদের হাতে পুরস্কার তুলে দেওয়া হবে।