বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

চলতি বছরের মে মাসে কান চলচ্চিত্র উৎসবে আঁ সার্তে রিগা বিভাগে প্রতিযোগিতা করে ‘রেহানা’। তখন সিনেমাটির প্রযোজক সূত্রে জানা গিয়েছিল, জুলাই মাসে সিনেমাটি মুক্তি দিতে চান। তার পরে দুই মাস পার হয়ে গেলেও এখনো সিনেমাটি মুক্তির কোনো তারিখ নির্ধারিত হয়নি। আজ জানা গেল আগামী নভেম্বর বা ডিসেম্বরের দিকে সিনেমাটির মুক্তি পাওয়ার কথা রয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে অস্কারে জমা দেওয়া নিয়ে ভাবনা কী? জানতে চাইলে সিনেমাটির নির্বাহী প্রযোজক এহসানুল হক বলেন, ‘আমরা এখনো চেষ্টা করছি সিনেমাটি বাংলাদেশের পক্ষ থেকে অস্কারে জমা দিতে। কিন্তু বাংলাদেশ থেকে অক্টোবর পর্যন্ত মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা জমা নেওয়ার কথা বলা হলেও করোনার কারণে অস্কার কমিটি কিছু নীতিমালা পরিবর্তন করেছে। সেগুলো নিয়ে বাংলাদেশে যাঁরা অস্কারের জন্য সিনেমা জমা নিচ্ছেন, তাঁদের সঙ্গে আলোচনা করে সিনেমাটি আমরা জমা দিতে চাই।’

default-image

কী ধরনের নীতিমালা পরিবর্তন করা হয়েছে জানতে চাইলে এহসানুল হক বলেন, ‘যতটা জেনেছি, নভেম্বর ও ডিসেম্বরে মুক্তি দিলেও অস্কারে সিনেমা জমা দেওয়া যাবে। সেই ক্ষেত্রে এই সময়ের মধ্যে কবে, কয়টি হলে মুক্তি পাবে, সেই তথ্যসংবলিত কাগজ বাংলাদেশ থেকে যাঁরা জমা নিচ্ছেন, তাঁদের কাছে দিতে হবে। সেই হিসাবে এখনো আমরা আশাবাদী সিনেমাটি অস্কারে জমা দিতে পারব।’

default-image

একাডেমি অ্যাওয়ার্ডের অফিশিয়াল সাইটে গিয়ে দেখা যায়, ২০২১ সালের ১ জানুয়ারি থেকে একই বছরের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত মুক্তি পাওয়া সিনেমাগুলো জমা দেওয়া যাবে। সেই জায়গা থেকে এখনো আশা জাগাতে পারে ‘রেহানা’। আগামী বছরের ২৭ মার্চ অনুষ্ঠিত হবে একাডেমি অ্যাওয়ার্ডের ৯৪তম আসর।

মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন