বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

আমরা যখন ইলহামের ছবি সবার সাথে শেয়ার করতে চাইব, তখন আমরা নিজেরাই সেটা আমাদের সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করব। তাই প্লিজ অন্য ছবিকে যেন ইলহামের বলে আমরা না ছড়াই। সবাই ভালো থাকবেন। আপনাদের দোয়া ও ভালোবাসার জন্য ইলহাম এবং আমাদের পরিবার কৃতজ্ঞ।’

default-image

প্রসঙ্গত, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম থেকে সংগৃহীত ছবিটি প্রথম আলো অনলাইনে ‘ইলহামের গৃহ প্রবেশ উপলক্ষে একটি ছোট্ট ভিডিও বানিয়েছি’ নিউজের সঙ্গে কিছু সময়ের জন্য ব্যবহার করা হয়েছিল। কিন্তু ভুল বুঝতে পেরে দ্রুত ছবিটি সরিয়ে ফেলে প্রথম আলো।

ছবিটি কবেকার সে বিষয়টিও প্রথম আলোর কাছে পরিষ্কার করে মোস্তফা সরয়ার ফারুকী বললেন, ‘বছরখানেক আগে একই হাসপাতালে একই ডাক্তারের তত্ত্বাবধানে তিশার এক আত্মীয়ের সন্তান জন্ম হয়। সেই সন্তানকে দেখতে হাসপাতালে যায় তিশা। তখন তিশার কোলে থাকা অবস্থায় নবজাতকের একটি ভিডিও তৈরি হয়। সেই ভিডিও থেকে এই ছবিটি ছড়িয়ে পড়েছে।’

default-image

ঢাকার গ্রিনরোডের একটি হাসপাতাল থেকেই ৫ জানুয়ারি ইলহাম নুসরাত ফারুকীর পৃথিবীতে আগমনের খবরটি ফেসবুকে জানান তার মা অভিনয়শিল্পী নুসরাত ইমরোজ তিশা ও বাবা পরিচালক মোস্তফা সরয়ার ফারুকী। সেদিন রাত ৮টা ২৭ মিনিটে কন্যাসন্তানের জন্ম দেন তিশা। জন্মের তিন দিন পর গত শনিবার হাসপাতাল থেকে তিশা ও ফারুকীর একমাত্র কন্যা ইলহাম তাঁর বনানীর বাড়িতে গেছে। ফারুকী বলেন, ‘এটা খুবই স্যাড ও আনফরচুনেট। আমরা ছবিটি দেখে সত্যিই অবাক হয়েছি!’

default-image

১০ জানুয়ারি মোস্তফা সরয়ার ফারুকী তাঁর ফেসবুক পেজে বাবাজীবনের অনুভূতি জানিয়ে একটি স্ট্যাটাস দেন।

সেখানে তিনি লিখেন, ‘বাবা জীবন। গিয়েছিলাম আড়ংয়ে। একজন ভদ্রমহিলা ওনার ছেলেকে নিয়ে এসে অনুরোধ করলেন একটা ছবি তোলার জন্য। তো এই অনুরোধ তো যথা কারণেই আমরা অনেক পাই। কিন্তু যে ব্যাপারটা আমার মন ভরে দিয়েছে, চোখে পানি প্রায় এনেই ফেলেছিল, সেটা হলো ওনার সম্বোধন। উনি আমাকে সম্বোধন করেছিলেন “ইলহামের বাবা” বলে! আহ! নাথিং মেড মি হ্যাপিয়ার দ্যান দিস। একসময় আমি পরিচিত হয়েছিলাম “রব সাহেবের ছেলে” হিসেবে। তারপর নিজের পরিচয়ে। এখন ইলহামের বাবা হিসেবে।’

default-image
ঢালিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন