বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

২০২১-২২ অর্থবছরে ১০টি পূর্ণদৈর্ঘ্য ও ১০টি স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রকে অনুদান দেওয়া হবে। তবে ক্ষেত্রবিশেষে এই সংখ্যা বাড়ানো হতে পারে।

default-image

চলচ্চিত্রের গল্প, চিত্রনাট্য, অভিনয়শিল্পীদের নামসহ পূর্ণাঙ্গ প্যাকেজ তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের চলচ্চিত্র-২ শাখায় জমা দিতে হবে। উপসচিব মো. সাইফুল ইসলাম স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে সেই সময় বলা হয়, বাংলাদেশের আবহমান সংস্কৃতিকে সমুন্নত রাখবে এবং একই সঙ্গে স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও মানবিক মূল্যবোধসম্পন্ন জীবনমুখী, রুচিশীল ও শিল্পমানসমৃদ্ধ গল্পের চলচ্চিত্রকে প্রাধান্য দেওয়া হবে। অগ্রাধিকার পাবে সাহিত্যনির্ভর ও শিশুতোষ গল্প ও চিত্রনাট্য।

default-image

গল্প ও চিত্রনাট্যটি মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক, শিশুতোষ, সাধারণ শাখা, নাকি প্রামাণ্যচিত্র, তা আবেদনে স্পষ্টভাবে উল্লেখ করতে হবে। তা ছাড়া শুধু বাংলাদেশের নাগরিকেরা অনুদান প্রাপ্তির জন্য যোগ্য বিবেচিত হবেন। অনুদানপ্রাপ্ত চলচ্চিত্রের শিল্পী ও কলাকুশলীদের বাংলাদেশের নাগরিক হতে হবে। বিশেষ ক্ষেত্রে বিদেশি শিল্পী বা কলাকুশলীর প্রয়োজন হলে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের অনুমতি নিতে হবে। তবে নির্মাণাধীন, সমাপ্ত বা মুক্তিপ্রাপ্ত কোনো চলচ্চিত্রের চিত্রনাট্য কোনোভাবেই অনুদানের জন্য বিবেচিত হবে না।

ঢালিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন