default-image

সম্প্রতি চট্টগ্রামে নির্বাচনে প্রচারণায় অংশ নিয়েছিলেন চিত্রনায়ক রিয়াজ আহমেদ। সেদিন এয়ারপোর্ট থেকে নেমে মেরিন ড্রাইভ রাস্তা দিয়ে আসার সময় এটি তাঁর বেশ ভালো লাগে। নিজের দেশে এমন রাস্তা দেখে তিনি গর্ব করে এক বক্তব্যে বলেছিলেন, এটি বাংলাদেশের নয়, ইউরোপের কোনো রাস্তা। রিয়াজের দাবি, তাঁর এই বক্তব্যকে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম এবং কিছু অনলাইন পোর্টাল তির্যকভাবে উপস্থাপন করেছেন। যে কারণে অশালীন ও অসভ্য ভাষায় আক্রমণের শিকার হতে হয়েছে তাঁকে। এ ঘটনায় তিনি হতবাক হয়ে ফেসবুকে কড়া জবাব দিয়েছেন।

চিত্রনায়ক রিয়াজ এয়ারপোর্ট থেকে নেমে মূল শহরে আসেন চট্টগ্রাম মেরিন ড্রাইভ রাস্তা হয়ে। সে সময় রাস্তাটিকে তাঁর কাছে উন্নত বিশ্বের রাস্তার মতোই মনে হয়। তিনি রাস্তাটির বেশ কিছু ছবিও তোলেন। এ কথাগুলোই তিনি একটি সাক্ষাৎকারে সংক্ষেপে বলেছিলেন, এত বাংলাদেশের নয়, ইউরোপের কোনো রাস্তা। সেই ঘটনাকে ভিন্নভাবে উপস্থাপনা করায় তিনি চটেছেন।

default-image

রিয়াজ ফেসবুকে লিখেছেন, ‘ভুঁইফোড় অনলাইন মিডিয়াগুলোর প্রধান কাজই মানুষের বক্তব্যকে বিকৃতভাবে উপস্থাপন করে কিছু ক্লিক কামানো, এটাই তাদের রুজিরুটি। প্রথমত, আমি প্রশ্ন করতে চাই আমার এই বক্তব্যের ভিডিও সবখানে আছে, আমাকে দেখাতে পারবেন সেই ভিডিওতে আমি কোথায় বলেছি যে ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম যাওয়ার পথে “পুরো রাস্তাটাই” ইউরোপের রাস্তা বলে মনে হয়েছে?’

বিজ্ঞাপন

সেদিন চট্টগ্রামে সারা দিন ধরে চলে উৎসবমুখর এবং স্বতঃস্ফূর্ত নির্বাচনী প্রচারণা। সারা দিন নির্বাচনী প্রচারণা ব্যস্ত ছিলেন রিয়াজ। পরে ঢাকা ফিরে বেশ ক্লান্ত বোধ করেন এই নায়ক। দীর্ঘক্ষণ টানা বিশ্রাম নেন। পরে ফেসবুকে ঢুকে দেখেন তুঘলকি কাণ্ড! তাঁর বক্তব্যকে বিভিন্ন নিউজ পোর্টাল ভিন্নভাবে উপস্থাপনা করায় অনেকেই কাছ থেকেই তাকে অশালীন ও অসভ্য ভাষায় আক্রমণের শিকার হতে হচ্ছে।

default-image

তিনি ফেসবুকে লিখেছেন, ‘একটি সংঘবদ্ধ চক্র এটিকে ভাইরালও করেছে। অন্য কোনো সময় হলে কিংবা অন্য কেউ হলে আমার আসলেই হয়তো অনেক রাগ উঠত, কিন্তু আমার এই মুহূর্তে খুব হাসি পাচ্ছে।’

রিয়াজ দেশের নেটিজেনদের কাছে প্রশ্ন রেখে ফেসবুকে লিখেছেন, ‘বাংলাদেশকে কি আপনারা এখনো এতই ফেলনা মনে করেন? আপনাদের কি মনে হয় বাংলাদেশে আসলেই এমন কোনো সড়ক কিংবা স্থাপনা নেই, যা উন্নত বিশ্বের সঙ্গে পাল্লা দিতে পারে? নিজ দেশের প্রতি আপনাদের কি এতটুকুও আস্থা নেই? আপনাদের দেশপ্রেম কি এতই নড়বড়ে, যে কিছু কুচক্রী গুজববাজের কথা শুনে আপনারা বিভ্রান্ত হবেন? না ভাই, বাংলাদেশ এখন আর সেই তলাবিহীন ঝুড়ি নেই। সেই দিন অনেক পেছনে ফেলে এসেছি। আমরা এখন উন্নয়নের মহাসড়কে দুর্বার বেগে ধাবমান।’

default-image

ফেসবুকে স্ট্যাটাসটি লিখে বেশ কিছু ছবি দিয়েছেন রিয়াজ আহমেদ। ছবিগুলো দেখে সাধারণ মানুষকে বিচারের দায়িত্ব দিয়েছেন। এই নায়ক লিখেছেন, ‘আপনারা নিজেরাই বিচার করুন যে আমরা আসলেই এগিয়েছি কি না। বাংলাদেশে আসলেই উন্নত বিশ্বের সমতুল্য স্থাপনা আছে কি না। আমি অনুরোধ করছি যে এসব গুজবকারীর কথায় কান দেবেন না। এরা দেশের শত্রু, এরা আপনার শত্রু।’

বিজ্ঞাপন
ঢালিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন