বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

শ্যাম বেনেগাল পরিচালিত সিনেমাটির এখন শেষ ধাপের শুটিং চলছে। সিনেমায় এই তিনজনের একটিই দৃশ্য আছে।

default-image

সিয়াম বললেন, ‘শুভ ভাইয়ের সঙ্গে ভারতে দেখা, চঞ্চল কাকার সঙ্গে ঢাকায়। আমাদের ব্যক্তিগত সম্পর্ক ভালো। হয়তো বছরে বা দুই বছরে একবার আমাদের দেখা হয়। কিন্তু আমাদের সম্পর্ক আগের মতোই অটুট।’
সিয়াম তখন সবে নাটকে অভিনয় শুরু করেছেন। একটি নাটকে এফ এস নাঈমের সঙ্গে তাঁর শুটিং। সেদিন নাঈমের সঙ্গে দেখা করতে এসেছিলেন শুভ। তাঁদের কথার ফাঁকে সিয়াম ও শুভর প্রথম দেখা।

default-image

সিয়াম বলেন, ‘শুভ ভাইয়ের স্ট্রাগলটা আগে থেকেই জানতাম। সেদিন আমাদের দেখা হওয়ার পরে শুভ ভাই এতটাই মানসিকভাবে শক্তি দিয়েছিলেন, যা মিডিয়ায় পথ চলতে এখনো সাহস জুগিয়েছে। শুভ ভাইয়ের কথা, হারা যাবে না, জিততে হবে। শুভ ভাই কিন্তু সব জায়গায় সফল। তিনি আমার অনুপ্রেরণাও। প্রথম দেখা হওয়ার পর থেকেই আমাদের মধ্যে ভালো সম্পর্ক।’

চঞ্চল চৌধুরীকে আগে ভাই বলেই ডাকতেন সিয়াম। সেই সম্পর্ক এখন কাকায় এসে ঠেকেছে। কেন চঞ্চলকে কাকা ডাকেন, এমন প্রশ্ন শুনেই হাসলেন সিয়াম। বললেন, ‘মিডিয়ায় কাজের সূত্রে আমার তিনজন কাকা। বড় কাকা গিয়াস উদ্দিন সেলিম।

default-image

মেজো কাকা ফজলুর রহমান বাবু আর ছোট কাকা চঞ্চল চৌধুরী। “পাপপূণ্য” সিনেমার শুটিং থেকেই আমাদের মধ্যে এই সম্পর্কের সূচনা। এখন কাকা ছাড়া তাঁদের ভাই আর বলতে পারি না। তবে এগুলো আমাদের মজার সম্পর্ক। আমরা সবাই আন্তরিক। এক অঙ্গনে কাজ করতে গেলে এই সম্পর্ক থাকা খুবই গুরুত্বপূর্ণ মনে হয় আমার কাছে।’

ঢালিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন