বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

শুক্রবার বেলা ১১টায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চ্যানেল আইয়ের ৪ নম্বর স্টুডিওতে কেক কাটার মাধ্যমে চ্যানেল আইয়ের জন্মদিনের অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করা হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ, কৃষিমন্ত্রী মো. আব্দুর রাজ্জাক, জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জি এম কাদের, তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহ্‌মেদ, সাবেক ক্রিকেটার রকিবুল হাসান, কণ্ঠশিল্পী মো. খুরশীদ আলম প্রমুখ। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সরাসরি উপস্থিত থাকতে না পারলেও নিউইয়র্ক থেকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা বার্তা পাঠিয়েছেন চ্যানেল আইয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফরিদুর রেজা সাগর। দিনব্যাপী চ্যানেল আই কার্যালয়ে এসে চ্যানেল আইকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক।

চ্যানেল আই নিয়ে ফরিদুর রেজা সাগর বলেন, ‘মানুষের যখন বয়স বাড়ে, তখন আমরা বলি তার জীবনের এক বছর যেন কমে গেল। কিন্তু কোনো প্রতিষ্ঠানের যখন বয়স বাড়ে তখন আমরা বলি সেই প্রতিষ্ঠানটি সমৃদ্ধির দিকে আরও এক ধাপ এগিয়ে গেল। চ্যানেল আইয়ের ক্ষেত্রেও ঠিক তেমনই হয়েছে। চ্যানেল আইয়ের বয়স যতই বাড়ছে, ততই যেন এটি সমৃদ্ধিতে পরিপূর্ণ হয়ে উঠছে। যার পেছনে রয়েছে চ্যানেল আইয়ের কর্মী থেকে দর্শক সবারই আন্তরিক ভালোবাসা।’

default-image

চ্যানেল আইয়ের পরিচালক ও বার্তাপ্রধান শাইখ সিরাজ বলেন, ‘আমরা আমাদের শুরুটা করেছিলাম হৃদয়ে বাংলাদেশকে নিয়ে। এ ছাড়া আমরা বলি ‘হাজারও রঙের ভিড়ে লাল–সবুজের গান গেয়ে যাই। সেখানে এত রঙের ভিড়ে আমরা কি টিকতে পারব কি না, সেই নিয়ে এখন সন্দিহান! তবে বরাবরই চ্যানেল আই মুক্তিযুদ্ধের কথা, গান, ঐতিহ্য, সংস্কৃতি, অর্থনীতি নিয়ে কথা বলে। জন্মদিনের এই শুভক্ষণে সবার কাছে দোয়া চাই আমরা, যেন সামনেও সেই ধারা বজায় রেখে আরও ভালো কিছু করতে পারি, সেটাই প্রত্যাশা।’

default-image

২৩ বছরে পদার্পণ উপলক্ষে দেশের শীর্ষ দৈনিকগুলোতে বিশেষ ক্রোড়পত্র প্রকাশ করেছে চ্যানেল আই। জন্মদিনে চ্যানেল আইকে অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানিয়ে বাণী দিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আরও বাণী দিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ। ১ অক্টোবর রাত ১২টা ১ মিনিটে চ্যানেল আই প্রাঙ্গণে তৈরি মঞ্চে বিশিষ্টজনদের সঙ্গে নিয়ে চ্যানেল আই পরিবারের সদস্যরা বর্ণাঢ্য আনুষ্ঠানিকতার মধ্য দিয়ে একটি দীর্ঘ কেক কেটে জন্মদিনের প্রথম উদ্‌যাপন করেন। জন্মদিন উপলক্ষে ১ অক্টোবর চ্যানেল আইয়ের পর্দায় ছিল মুগ্ধকর বিভিন্ন পরিবেশনা।

টেলিভিশন থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন