বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

মণি আর মন্ডা নামের দুই ভাইবোনের ভালোবাসার গল্প দিয়ে শুরু হয় নাটক। ক্রিকেটপাগল মন্ডার খেলা দেখে মণির মাঝেও জন্মেছিল ক্রিকেট আর ক্রিকেটার মাশরাফির জন্য ভালোবাসা। তবে গ্রামের চেয়ারম্যানের সঙ্গে দ্বন্দ্বে ন্যায়ের পথে থাকতে হারিয়ে যায় মন্ডা। ভাইকে খুঁজতে শহরে এসে সাদিক খানের বাড়িতে মণি পায় বন্ধু আয়ান আর মমতাময়ী মা রুনাকে। মেয়ে হয়েও ছেলের বেশ ধরে মণি ক্রিকেট খেলে সুনাম কুড়ায় ‘মাশরাফি জুনিয়র’ নামে। অনেক চড়াই-উতরাই পেরিয়ে ভাইকে খুঁজে পেলেও মণি দেখে স্মৃতি হারিয়ে ভাইটি আজ ‘মানিক’। সে কি ভাইকে আগের মতো করে ফিরে পাবে?

আহমেদ খানের গল্পে ‘মাশরাফি জুনিয়র’-এর চিত্রনাট্য লিখেছেন আসফিদুল হক। সংলাপ লিখেছেন মো. মারুফ হাসান। পরিচালনা করেছেন সাজ্জাদ সুমন। তিনি বলেন, ‘এমন কাজ আমাদের এখানে আগে হয়নি। এ কারণে বেশ সাড়া পাচ্ছি। এখানে মাশরাফি নামের অনুপ্রেরণাটা তো আছেই। আমার বিশ্বাস, এতে শিশুরাও ক্রিকেটার হওয়ার আত্মবিশ্বাস পাবে।’

default-image

নাটকটিতে অভিনয় করেছেন সাফানা নমনি, অনিন্দ্য, হামিম, শতাব্দী ওয়াদুদ, গোলাম ফরিদা ছন্দা, ডাক্তার এজাজ, ফজলুর রহমান বাবু, রুনা খান, লুৎফর রহমান জর্জ, আইরিন আফরোজ, মাইমুনা ফেরদৌস প্রমুখ। টিভিতে দেখানোর পরই নাটকটি দেখা যায় দীপ্তর ইউটিউব চ্যানেলে।

টেলিভিশন থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন