default-image

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন অভিনেতা তৌসিফ মাহবুবের স্ত্রী জারা মাহবুব । কাজ থেকে বিরতি নিয়ে স্ত্রীর সেবা করছিলেন তিনি। ধারণা করছেন, তিনিও করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। বর্তমানে দুজনই বাসায় আইসোলেশনে আছেন।

বিজ্ঞাপন

তৌসিফের শরীরে করোনার কোনো উপসর্গ নেই। তিনি জানান, স্ত্রীর অবস্থা কিছুটা গুরুতর। তাঁর জ্বর এবং শ্বাসকষ্ট রয়েছে। চলতি মাসের মাঝামাঝি সময়ে স্ত্রীকে নিয়ে অসুস্থ শ্বশুর–শাশুড়িকে দেখতে গিয়েছিলেন তৌসিফ। পরে জানতে পারেন, তাঁর শ্বশুরবাড়ির সবাই কোভিড–১৯ পজিটিভ। সেই থেকেই তাঁরা আইসোলেশনে। তৌসিফ বলেন, ‘গত ২৩ নভেম্বর আমার শ্বশুর–শাশুড়ি করোনায় আক্রান্ত হন। তখন আমার স্ত্রী এবং আমি শ্বশুর বাড়িতেই ছিলাম। এক দিন পর আমার স্ত্রীর শারীরিক অবস্থা কিছুটা খারাপ হলে করোনা টেস্ট করাই। পরে জানতে পারি, সে করোনা পজিটিভ। সেদিন থেকেই আমরা দুজন একসঙ্গে আছি।’ নিজে করোনা টেস্ট করিয়েছেন কি না, জানতে চাইলে তৌসিফ বলেন, ‘আমি টেস্ট করাইনি। আমরা দুজন যেহেতু একসঙ্গে আছি, ধারণা করছি আমিও করোনায় আক্রান্ত।’ এই অভিনেতা জানান, তাঁর শরীরে করোনার কোনো উপসর্গ নেই। স্ত্রীকে নিয়ে কিছুটা চিন্তিত। আজ রাতে অবস্থা বুঝে তাঁকে হাসপাতালে ভর্তির পরিকল্পনা করছেন।

default-image

গত ২৪ নভেম্বর তৌসিফ সর্বশেষ ‘বিফলে মূল্য ফেরত’ নাটকে অভিনয় করেন। তাঁর সহশিল্পী ছিলেন সাফা কবির। শ্বশুরবাড়ি থেকে সংক্রমিত হতে পারেন ধারণা করে তিনি শুটিং থেকে বিরতি নেন।

২০১৩ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি ভালোবাসা দিবসে প্রচারিত হয় ‘অল টাইম দৌড়ের উপর’ নাটকটি। নাটক দেখে সে রাতে বন্ধুরা অভিনন্দন জানান তৌসিফকে। পরদিন সকালে ঘুম থেকে উঠে চমকে যান তৌসিফ মাহবুব। দেখেন, এক রাতের মধ্যে তাঁর ফেসবুকে যুক্ত হয়েছেন ১০ হাজার অনুসারী। ভক্তদের হাজারো বার্তায় ভরে উঠেছিল তাঁর মেসেঞ্জার। ‘অল টাইম দৌড়ের উপর’ নাটকের জন্য অনেক দিন পর্যন্ত প্রশংসা পেয়েছেন তিনি। সেই থেকে তৌসিফ মাহবুবকে আর পেছনে তাকাতে হয়নি। নাটকটি এখনো তাঁকে কাজের দৌড়ে রেখেছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন