হৃদ্রোগকে দূরে রাখতে যা মেনে চলবেন—

খাদ্যাভ্যাস

  • চর্বিযুক্ত খাবার এড়িয়ে চলুন। গরু-খাসির মাংস, কলিজা, মগজ, বড় চিংড়ির মাথা, ঘি-মাখন ও ডালডা যথাসম্ভব এড়িয়ে চলবেন।

  • বেকারির খাবার ও ফাস্ট ফুড ছাড়তে হবে।

  • ওমেগা-৩ ফ্যাটি অ্যাসিডসমৃদ্ধ উপকারী চর্বিজাতীয় খাবারের ওপর নির্ভরশীল হতে হবে বেশি। মাছ ও মাছের তেল, বাদাম ও বীজজাতীয় খাবার, বাদামের তেল, অলিভ অয়েল—এসবে থাকে উপকারী চর্বি।

  • আঁশযুক্ত খাবার, যেমন যব, ভুট্টা, লাল আটার রুটি, টাটকা শাকসবজি, ফলমূল ও সালাদ খাবেন প্রচুর। এড়িয়ে চলবেন সব ধরনের কোমল পানীয়।

নিজেকে জানুন

  • বয়স চল্লিশের কোঠা ছুঁলে কিছু পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা উচিত।

  • রক্তচাপ পরীক্ষা করান। উচ্চ রক্তচাপ শনাক্ত হলে তা নিয়ন্ত্রণে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

  • রক্তের শর্করা পরীক্ষা করুন। ডায়াবেটিস ধরা পড়লে দ্রুত নিয়ন্ত্রণের ব্যবস্থা নিতে হবে। ডায়াবেটিস রোগীর হৃদ্রোগের ঝুঁকি বেশি।

  • রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রা পরীক্ষা করে দেখুন।

ডা. শরদিন্দু শেখর রায়, সহকারী অধ্যাপক, হৃদ্রোগ বিভাগ, জাতীয় হৃদ্রোগ ইনস্টিটিউট ও হাসপাতাল