বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

লিভিং রুমের সোফা

এক, দুই ও তিন সিটের সোফা রয়েছে হাতিলে। মডিউল সোফার পাশাপাশি রয়েছে স্টোরেজ সোফা। যেগুলো লিভিং রুমে ব্যবহার করা ছাড়াও সোফার ভেতরে অন্য কিছু রাখার সুযোগও থাকে। সোফার ফোম ও কাপড়ের বিষয়ে বেশ যত্নশীল হাতিল। মানের বিষয়টি নিশ্চিত করতে সোফা বা যেকোনো আসবাবের ফোম হাতিল নিজেই তৈরি করে। ফার্নিচারের কাপড় আমদানি করা হয় ইন্দোনেশিয়া ও চীন থেকে।

আধুনিক ডিজাইন

ফার্নিচার ডিজাইনের ক্ষেত্রে ক্রেতার পছন্দ ও চাহিদাকে প্রাধান্য দেয় হাতিল। এ ব্যাপারে হাতিলের পরিচালক শফিকুর রহমান জানান, বর্তমান লাইফস্টাইলের সঙ্গে যায়, এমন ডিজাইনই তাঁরা করে থাকেন। সময়ের সঙ্গে তাল মিলিয়ে আন্তর্জাতিক মানের ডিজাইন করার চেষ্টা করে হাতিল। ছোট বাসার ছোট রুমের কথা ভেবে হাতিল কিছু স্মার্ট ফার্নিচার তৈরি করেছে। যেমন বাচ্চার পড়ার জন্য কেনা টেবিল। পড়াশোনা শেষে সেটিকে বড় করে বেড বানিয়ে ঘুমানোও যাবে।

default-image

উড, ইঞ্জিনিয়ারিং উড ও এমডিএফ বোর্ড—এই তিন ধরনের উপকরণ দিয়ে বানানো হয় হাতিলের ফার্নিচার। ইঞ্জিনিয়ারিং উডগুলো হাতিল নিজেই তৈরি করে। আর সলিড উড জার্মানি থেকে আমদানি করা হয়। আমদানি করা কাঠগুলো এফএসসি (ফরেস্ট স্টুয়ার্ডশিপ কাউন্সিল, একটি আন্তর্জাতিক অলাভজনক সংস্থা, যা বিশ্বের বিভিন্ন বন সংস্থা ও কাঠের মান নির্ধারণ, সুরক্ষা চেইন প্রোগ্রাম নিয়ে কাজ করে) থেকে সার্টিফায়েড। হাতিলের ফার্নিচার তৈরির জন্য আমদানি করা কাঠগুলো পরিকল্পিত বন থেকে সংগ্রহ করা হয়। সেগুলো পরে প্রসেস করে দেশে আনা হয়। ফার্নিচার বানাতে বাংলাদেশের কোনো কাঠ ব্যবহার করে না এই প্রতিষ্ঠান।

দরদাম

লিভিং রুমের সোফার দাম নির্ভর করে সংখ্যার ওপর। এক সিটের সোফা ৭ হাজার ২৬৫ টাকা, দুই সিটের ৯ হাজার ১২০ টাকা এবং পাঁচ সিটের সোফার দাম শুরু ১৩ হাজার ৭৩ টাকা থেকে। সেন্টার টেবিলের দাম শুরু ৩ হাজার ৩২৫ টাকা থেকে। টিভি ক্যাবিনেটের দাম ১৪ হাজার ৬৭০ টাকা থেকে শুরু।

বিক্রয়োত্তর সেবা

হাতিলের সব ফার্নিচারে রয়েছে এক বছরের বিক্রয়োত্তর সেবা (ওয়ারেন্টি)। ক্রেতারা চাইলে বাসায় গিয়েও হাতিল এ সেবা দেয়। গ্রাহকের ব্যবহারের কারণে যদি সমস্যা হয়, সেটাও হাতিলের পক্ষ থেকে নির্দিষ্ট মজুরির বিনিময়ে ঠিক করে দেওয়া হয়। একই সুবিধা রয়েছে বিক্রয়োত্তর সেবার সময় শেষ হয়ে গেলেও।

ঈদ অফার

প্রতিবারের মতো এবারের ঈদেও আকর্ষণীয় অফার দিয়েছে হাতিল। ‘উৎসবে চাই নতুন ফার্নিচার’ শিরোনামে এ অফারে হাতিলের সব পণ্য পাওয়া যাবে ৫ থেকে ১০ শতাংশ ছাড়ে।

ইএমআই সুবিধা

ক্রেডিট কার্ড ব্যবহার করেও কেনা যাবে হাতিলের ফার্নিচার। হাতিলের সঙ্গে ১৮টি ব্যাংকের ইএমআই সুবিধা রয়েছে। ৩ থেকে ১২ মাসের শূন্য শতাংশ সুবিধায় ক্রেডিট কার্ড ব্যবহার করে হাতিলের পণ্য কিনতে পারবেন ক্রেতারা। এ ছাড়া প্রাইম ব্যাংকের ক্রেডিট কার্ড ব্যবহার করে হাতিলের ফার্নিচার কিনলে থাকছে ক্যাশব্যাক অফার।
সারা দেশে ৭৪টি এবং দেশের বাইরে হাতিলের রয়েছে ২০টি শোরুম। এ ছাড়া গ্রাহকেরা হাতিলের ওয়েবসাইটফেসবুক পেজ থেকেও হাতিলের লিভিং রুমের আসবাব কিনতে পারবেন।

বিজ্ঞাপন বার্তা

গৃহসজ্জা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন