ছবি সিলভেস্টার মামবোয়ে, আনস্প্ল্যাশ
ছবি সিলভেস্টার মামবোয়ে, আনস্প্ল্যাশ

খেজুর

default-image

বিশ্বজুড়েই ইফতারে সবচেয়ে জনপ্রিয় খাবার খেজুর। একদিকে মুসলমানদের জন্য কোরানে উল্লিখিত পবিত্র ফল, অন্যদিকে সারা দিনের রোজার শেষে পুষ্টিগুণে ভরপুর খেজুর শরীরকেও দেয় জরুরি শক্তি।

ফলের সালাদ ও জুস

default-image

সারা দিনের ক্লান্তির শেষে রোজা ভাঙতে অনেকেই পছন্দ করেন ফলের জুসে। এটি দেহ ও মনকে দেয় প্রশান্তি, পাশাপাশি শরীরে জোগায় প্রয়োজনীয় শক্তি। পৃথিবীর প্রায় সর্বত্রই ইফতার আয়োজনে ফল ও ফলের জুস স্থান পায়। মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোতে ডুমুর, কিউয়ির মতো ফলগুলো বেশি জনপ্রিয় হলেও উপমহাদেশে স্থানীয় ঋতুভিত্তিক ফলগুলোর জুসও কিন্তু যথেষ্ট পুষ্টিকর।

বিজ্ঞাপন

জিলাপি

default-image

বিশ্বজুড়ে তো বটেই, তবে ভারতীয় উপমহাদেশে ইফতারে জিলাপির মতো জনপ্রিয় খাবার কমই আছে। নানা ঢঙে, নানা ধরনে, নানা উপকরণ দিয়ে ভিন্নতা আনার মাধ্যমে এক জিলাপির মধ্যেই আছে অনেক প্রকার, অনেক রকম স্বাদ। চিকন জিলাপি কি ঘন চিনির শিরার ডুবানো ভারী জিলাপি, ইফতার টেবিলে জিলাপি ছাড়া অন্তত বাঙালির তো চলেই না। ঢাকার রাস্তার মতো দিল্লির রাস্তায়ও দেখা মেলে জিলাপির দোকান। তাই ইফতারের মধ্যে জিলাপি এখন উপমহাদেশের বাইরেও পেয়েছে ব্যাপক জনপ্রিয়তা।

কুনাফা ও বাসবৌসা

default-image

মধ্যপ্রাচ্যে খুবই জনপ্রিয় এই মিষ্টি খাবারটি তৈরি হয় সেমাই ও ঘন দুধ বা মালাই সহযোগে। দেখতে অনেকটা কেকের মতো এ খাবার বিশ্বজুড়েই বেশ সমাদৃত। রমজানে মধ্যপ্রাচ্যের প্রায় সব দেশেই এই খাবারের ব্যাপক প্রচলন দেখা যায়। একইভাবে বাসবৌসাও একটি ডেজার্ট, যা মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক হলেও পুরো পৃথিবীতে জনপ্রিয়। সুজি ও ঘন দুধের স্বাদের এই খাবারও ভীষণ জনপ্রিয়।

বিজ্ঞাপন

আঙুর পাতায় মোড়ানো ভাত

default-image

মধ্যপ্রাচ্যে ব্যাপক জনপ্রিয় এ খাবারকে একেক দেশে একেক নামে ডাকা হলেও তৈরির প্রণালি মূলত একই। আঙুর পাতায় মসলা ও টমেটো পেঁয়াজ দিয়ে ভাজা ভাত মুড়িয়ে তৈরি করা হয় এ খাবার। ইরাক ও তুরস্কে দোলমা নামে পরিচিত হলেও সিরিয়াতে এ খাবারের নাম ইয়াবরা। প্রায় পুরো মধ্যপ্রাচ্যেই এই পুষ্টিকর খাবার ইফতারের জন্য খুব জনপ্রিয়।

শাকশুকা

default-image

এ খাবার আফ্রিকা বিশেষত উত্তর আফ্রিকার দিকে বেশি জনপ্রিয় হলেও বর্তমানে সারা পৃথিবীতেই পেয়েছে ব্যাপক খ্যাতি। ডিম, সবজি ও কিমার মতো পুষ্টিকর খাবারের সমন্বয়ে তৈরি হওয়ায় এটি ইফতারের পুষ্টিমান নিশ্চিত করতে পারে সহজেই। এর সঙ্গে পাউরুটি বা আরব স্টাইলের রুটি হলে এই খাবার একাই এক শ। বর্তমানে তাই আফ্রিকার সীমা পেরিয়ে সারা বিশ্বেই এই খাবারের ব্যাপক জনপ্রিয়তা।

কোলাক

default-image

ইন্দোনেশিয়ার এই ডেজার্ট আইটেম দেখতে যেমন খুবই সুন্দর তেমনি খেতেও দারুণ। ঠান্ডা ও মিষ্টতায় ভরপুর এই খাবার তাই রমজানে হয়ে ওঠে ব্যাপক জনপ্রিয়। নারকেল দুধের সঙ্গে পাম সুগার আর এর সঙ্গে কলা, কমলা ও অন্যান্য মৌসুমি ফলের সহযোগে তৈরি এই খাবার এখন তাই ভোজন রসিকদের খুবই প্রিয়।

লেখক: অর্থনীতি বিভাগ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

বিজ্ঞাপন
রসনা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন