default-image

উচ্চশিক্ষা ও উচ্চ আদালতে বাংলা ভাষার ব্যবহার নিশ্চিত করার পাশাপাশি জাতিসংঘের দাপ্তরিক ভাষা হিসেবে বাংলাকে অন্তর্ভুক্ত করার দাবি জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।
মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে আজ রোববার প্রথম প্রহরে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের পক্ষে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ শেষে সাংবাদিকদের কাছে তিনি এ কথা জানান।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আজকে বিশ্বে জনসংখ্যার দিক দিয়ে বাংলা ভাষা হচ্ছে ষষ্ঠ ভাষা। অথচ জাতিসংঘ এখনো দাপ্তরিক ভাষা হিসেবে বাংলা ভাষাকে স্বীকৃতি দেয়নি। আমরা আজকে একুশের মঞ্চ থেকে সেই দাবি জানাচ্ছি।’

বিজ্ঞাপন

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘স্বাধীনতার এত বছর পরও আমাদের বিজয় সুসংহত হতে পারেনি, কারণ আমাদের প্রধান শত্রু সাম্প্রদায়িকতা। সাম্প্রদায়িকতার ডালপালা বাংলাদেশে এখনো রয়ে গেছে। তাই এবারকার একুশের প্রত্যয় হোক আমরা সাম্প্রদায়িকতার বিষবৃক্ষকে উপড়ে ফেলতে চাই।’

দেশের জনগণকে ঐক্যবদ্ধ হতে আহ্বান জানিয়ে কাদের বলেন, ‘জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের উদার অসাম্প্রদায়িক গণতান্ত্রিক ও সমৃদ্ধ বাংলাদেশ বিনির্মাণে সাম্প্রদায়িক অপশক্তির শিকড় উৎপাটনের প্রত্যয় আমাদের।’

এ সময় আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মতিয়া চৌধুরী ও কর্নেল (অব.) ফারুক খান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ, সাংস্কৃতিক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল, দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, উপদপ্তর সম্পাদক সায়েম খান উপস্থিত ছিলেন।

রাজনীতি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন