শনিবার রাজধানীর গণস্বাস্থ্য নগর হাসপাতালে রাষ্ট্রচিন্তার আয়োজনে দুই দিনব্যাপী জাতীয় রাষ্ট্রনৈতিক সেমিনারের শেষ দিনের প্রথম সেশনে তিনি এসব কথা বলেন। এই সেশনে মূল প্রবন্ধ পাঠ করেন গবেষক সাধনা মহল।

দ্বিতীয় সেশনে কবি ও প্রাবন্ধিক ফরহাদ মজহার বলেন, ঔপনিবেশিক রাষ্ট্রকাঠামো থেকে বের হতে হবে। মাফিয়ারা দেশটাকে ভাগ করে নিয়েছে।

বর্তমান সংবিধান সার্বভৌমত্ব, জাতিস্বার্থকে সুরক্ষা দিতে পারেনি বলে মন্তব্য করেন বাংলাদেশ পরিবেশ আইনবিদ সমিতির (বেলা) প্রধান নির্বাহী আইনজীবী সৈয়দা রিজওয়ানা হাসান। অন্যদিকে এক ব্যক্তির শাসনকাঠামোকেই সবচেয়ে বড় সমস্যা বলে উল্লেখ করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক আসিফ নজরুল।

রাষ্ট্রসংস্কার আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক হাসনাত কাইয়ূম বলেন, মাফিয়াদের হাত থেকে দেশটাকে উদ্ধার করে জনগণের মালিকানার নতুন রাষ্ট্রকাঠামো তৈরি করতে হবে। সংবিধান সংস্কারের মাধ্যমে সে কাজটা শুরু করতে হবে। সে জন্য প্রয়োজন বর্তমান সরকারের পদত্যাগ, অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের অধীনে নির্বাচন।

রাষ্ট্রচিন্তার আয়োজনে দুই দিনব্যাপী জাতীয় রাষ্ট্রনৈতিক সেমিনারের উদ্বোধন করেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ও সমাজচিন্তক আবুল কাশেম ফজলুল হক। এই সেমিনারের বিভিন্ন সেশনে বক্তব্য দেন নাগরিক ঐক্যের সভাপতি মাহমুদুর রহমান মান্না, গণসংহতি আন্দোলেনের প্রধান সমন্বয়কারী জোনায়েদ সাকি, রাষ্ট্রচিন্তার সম্পাদক হাবিবুর রহমান, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক প্রমুখ।

রাজনীতি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন