বিএনপি নেতা আমানউল্লাহ বলেন, ‘ওবায়দুল কাদের সাহেব গতকাল (শুক্রবার) বলেছেন, সংবিধান অনুযায়ী নির্বাচন হবে। ৯০ সালের আন্দোলনে সংবিধান পরিবর্তন হয়েছিল। আপনাদের কি মনে আছে? আপনারা ভোট চুরি করে এমপি নির্বাচন করে সংসদে যে সংবিধান তৈরি করেছেন, সেই সংবিধান বাংলাদেশে চলবে না।’

সংবিধান জনগণের ভোটাধিকার প্রতিষ্ঠার জন্য তৈরি করা হয় মন্তব্য করে আমানউল্লাহ বলেন, ‘সংবিধান জনগণের মানবাধিকার প্রতিষ্ঠার জন্য, জনগণের মৌলিক অধিকার প্রতিষ্ঠার জন্য। সেই সংবিধানই বাংলাদেশে হবে।’

ডাকসুর সাবেক ভিপি আমানউল্লাহ বলেন, ‘ওবায়দুল কাদের সাহেব অসত্য কথা বলছেন। তিনি বলেছেন, বিএনপির সমাবেশে বাধা দেওয়া হচ্ছে না। অথচ দেশের মানুষ সবাই দেখছে কী করা হচ্ছে? বরিশালে সবকিছু বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। বরিশাল অবরুদ্ধ।’

প্রতিবাদসভায় আরও বক্তব্য দেন বাংলাদেশ এলডিপির সভাপতি আবদুল করিম আব্বাসী, জ্যেষ্ঠ সহসভাপতি আবদুল গনি, সহসভাপতি সৈয়দ মুহাম্মদ ইব্রাহিম রওনক, মহাসচিব শাহাদাত হোসেন সেলিম, অতিরিক্ত মহাসচিব তমিজ উদ্দিন, সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব এম এ বাসার, লেবার পার্টির চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান ইরান প্রমুখ।