বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

লো গ্রায়েত অবশ্য বেনজেমা শাস্তি পেলে সে ক্ষেত্রে তাঁকে খেলানো না–খেলানোর সব সিদ্ধান্তের ভার তুলে দিয়েছেন ফ্রান্স জাতীয় দলের কোচ দিদিয়ের দেশমের হাতে। তবে গত ইউরোতে ছয় বছর পর বেনজেমাকে ফ্রান্স দলে ফেরানো দেশমও যে বেনজেমার সঙ্গে আগের সব বিভেদ ভুলে গেছেন, সেটা কোচ নিজেই বলেছেন অনেকবার।

ভালবুয়েনার এই যৌন ভিডিও ফাঁস করার হুমকি দিয়ে তাঁর কাছ থেকে অর্থ আদায়ের সঙ্গে জড়িত ছিলেন বেনজেমা, ২০১৫ সালে এমন অভিযোগ উঠেছিল ফরাসি স্ট্রাইকারের বিরুদ্ধে। সে সময় এই নোয়েল লো গ্রায়েতই বলে দিয়েছিলেন, ফ্রান্স জাতীয় দলে বেনজেমার ক্যারিয়ার শেষ!

দেশমও তখন বেনজেমাকে ডাকেননি, এ নিয়ে দেশমকে আক্রমণ করে বেনজেমা বলেছিলেন, দেশম ‘বর্ণবাদের সামনে হার মেনেছেন।’ দেশম আবার সেটির জবাবে বলেছিলেন, বেনজেমার এমন মন্তব্য তিনি কখনোই ভুলবেন না।

default-image

ভুলেছেন কি না, সেটি অন্য প্রশ্ন। তবে গত ইউরোর সময়ে হঠাৎ বেনজেমাকে ৬ বছর পর দলে ফেরান দেশম। যদিও ইউরোতে শেষ ষোলোতেই বাদ পড়েছে ফ্রান্স, তবে কিলিয়ান এমবাপ্পে ও আঁতোয়ান গ্রিজমানের সঙ্গে ফ্রান্সের আক্রমণে স্বপ্নের ত্রয়ী গড়েছেন বেনজেমা। বিশেষ করে এমবাপ্পের সঙ্গে মাঠ ও মাঠের বাইরে বেনজেমার সম্পর্ক ও সমন্বয় চোখে পড়ছে বেশ। এমবাপ্পে ও বেনজেমার গোলে প্রথমবারের মতো উয়েফা নেশনস লিগ জয়ও দেশমের এই সিদ্ধান্তের পক্ষে কথা বলছে।

এর মধ্যে এখন আবার যৌন ভিডিও ফাঁসের মামলা মাথাচাড়া দিয়ে উঠেছে। গত মাসে মামলার শুনানিতে বেনজেমা যেতে পারেননি ক্লাবের হয়ে ম্যাচ খেলতে হওয়ায়। ৩৩ বছর বয়সী ফরাসি স্ট্রাইকার অবশ্য কোনো ধরনের অপরাধ করেননি বলে আত্মপক্ষ সমর্থন করেছেন।

তবে মামলার রায়ে বেনজেমাকে ১০ মাসের স্থগিত জেলের শাস্তির পাশাপাশি ৭৫ হাজার ইউরো জরিমানা করা হতে পারে বলে শোনা যাচ্ছে। স্থগিত জেলের শাস্তি হলে বেনজেমাকে জেলে যেতে হবে না, সে ক্ষেত্রে তাঁর ফ্রান্স দলে খেলতে আইনগত বাধাও থাকবে না। কিন্তু নৈতিকতার জায়গা থেকে বেনজেমাকে ফ্রান্স দলে দেশম ফেরাবেন কি না, সে প্রশ্ন উঠবেই। উঠে গেছে এরই মধ্যে।

default-image

সেই প্রশ্নের জবাবেই এখন নোয়েল লো গ্রায়েত বলছেন, ‘কে দলে জায়গা পাবে, সেটি ঠিক করার দায়িত্ব সব সময়ই কোচের। সম্ভাব্য আইনগত শাস্তির ক্ষেত্রেও করিম বেনজেমাকে দল থেকে বাদ দেওয়া হবে না।’ শাস্তি পেলে বেনজেমা আপিল করতে পারবেন বলেও জানিয়েছেন লো গ্রায়েত।

তবে শাস্তি পেলেও ফ্রান্স দলে বেনজেমার ডাক পাওয়ায় এবার আর তাঁর আপত্তি থাকবে না বলে জানিয়ে দিয়েছেন লো গ্রায়েত, ‘আগামী কয়েক মাসে ওর দলে ডাক পাওয়া বা বাদ পড়ার সঙ্গে এই রায়ের কোনো সম্পর্ক থাকবে না। আমি এ ব্যাপারে কোনো হস্তক্ষেপ করব না। খেলার দৃষ্টিকোণ থেকে বেনজেমাকে লে ব্ল–র (ফ্রান্স দলের ডাকনাম) হয়ে খেলতে পারবে কি না, সেই সিদ্ধান্ত নেওয়ার ভার কোচ দিদিয়েরের।’

রিয়াল মাদ্রিদের জার্সিতে গত কয়েক মৌসুমে বেনজেমার দারুণ ফর্মের কারণেই ফ্রান্স দলে ফিরেছেন। গত মৌসুমেও লিগে ২৪ গোল করেছেন বেনজেমা। ২০২১ সালে ক্লাব ও জাতীয় দল মিলিয়ে ৩৮ গোল করেছেন। যে কারণে বেনজেমার ব্যালন ডি’অর জয়ের সম্ভাবনা নিয়ে আলোচনাও উঠছে অনেক।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন