দ্বিতীয় দিনে আগুন ঝরাচ্ছেন তাসকিন।
দ্বিতীয় দিনে আগুন ঝরাচ্ছেন তাসকিন।ছবি: এএফপি

পাল্লেকেলে টেস্টের দ্বিতীয় দিনটা পুরোপুরি নিজের দাবি করতে পারেন তাসকিন আহমেদ। বাংলাদেশের এই পেসার আজ রীতিমতো আগুন ঝরিয়েছেন। সে আগুনে পুড়ে খাঁক লঙ্কান ব্যাটিং। ৩ উইকেট নিয়ে তিনি ঘুরে দাঁড়াতে সাহায্য করেছেন বাংলাদেশকে।

তাঁর প্রথম শিকার সেঞ্চুরি করা ওপেনার লাহিরু থিরিমান্নে। প্রথম ঘণ্টায় ধীরে সুস্থে ব্যাটিং করা লঙ্কান ব্যাটসম্যানের সামনে হঠাৎই ভয়ংকর হয়ে উঠলেন তাসকিন। তাঁর লেগ স্টাম্পের ওপর লাফিয়ে ওঠা বলে গ্ল্যান্স জাতীয় শট খেলতে গিয়ে উইকেটের পেছনে ধরা পড়লেন উইকেটকিপার লিটন দাসের গ্লাভসে। ২৯৮ বল খেলে ১৪০ রান করে আউট হয়েছেন থিরিমান্নে। তাঁর ইনিংসে ছিল ১৫টি বাউন্ডারি।

তাসকিন সেখানেই থামেননি। থিরিমান্নেকে ফেরানোর সুখানুভূতির মধ্যেই আনন্দের উপলক্ষ এনে দেন অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুসকে আউট করে। এর আগে অবশ্য একটি রিভিউ নিতে পারতেন তাসকিন। কিন্তু সেটি নেননি। পরে রিপ্লেতে দেখা যায় ম্যাথুস আউট ছিলেন। পরে তাসকিনের বলে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিয়ে দেন ম্যাথুস। রিভিউ না নেওয়ার আক্ষেপটা বেশিক্ষণ করতে দেননি তাসকিন। ৫ রানে ফেরা ম্যাথুসের ক্যাচটি উইকেটের পেছনে দারুণভাবে নেন লিটন।

default-image
বিজ্ঞাপন

শ্রীলঙ্কার চতুর্থ উইকেটটি তুলে নেন বাঁ হাতি স্পিনার তাইজুল ইসলাম। তিনি ফেরান ধনঞ্জয়া ডি সিলভাকে। আগের টেস্টেই ১৫০ ছাড়ানো ইনিংস খেলেছিলেন ডি সিলভা। এবার তিনি ফেরেন ২ রানে। তাইজুলের স্পিন খেয়ে লাফিয়ে ওঠা বলে খোঁচা দিয়েই নিজের বিপদ ডেকে আনেন ডি সিলভা। বল চলে যায় স্লিপে দাঁড়ানো নাজমুল হোসেনের দিকে। তিনি অবশ্য প্রথম প্রচেষ্টায় ক্যাচটি নিতে পারেননি। তবে দ্বিতীয়বারের চেষ্টায় ক্যাচটি নিয়ে প্রথম দিনে সেঞ্চুরি করা দিমুথ করুনারত্নের ক্যাচ ফেলার ক্ষতে কিছুটা হলেও প্রলেপ দেন।

default-image

মধ্যাহ্ন বিরতিতে শ্রীলঙ্কা যায় ৪ উইকেটে ৩৩৪ রান নিয়ে। তবে দ্বিতীয় সেশনের শুরুর দিকটা আবার নিজেদের করে নিয়েছিলেন দুই লঙ্কান ব্যাটসম্যান ওশাদা ফার্নান্দো আর পাথুম নিশাঙ্কা। দুজন স্কোরবোর্ডের গতি বাড়ান। ওশাদাও ধীরে ধীরে নিজের ইনিংসটি বড় করছিলেন। ৫৪ রানের জুটি গড়ে বাংলাদেশকে চোখ রাঙাতে শুরু করার মুখেই তাসকিনের আবারও আঘাত। নিশাঙ্কাকে দারুণ এক বলে বোল্ড করেন তাসকিন। লঙ্কান ব্যাটসম্যান বুঝতেই পারেননি তাসকিনের বলটি। ৮৪ বলে ৩০ রান করে ফেরেন তিনি।

এর পরপরই সেট ব্যাটসম্যান ওশাদার ফেরার পালা। ৮১ রান করেছিলেন তিনি। সেঞ্চুরির দিকে এগিয়ে যাচ্ছিলেন খুব আত্মবিশ্বাসের সঙ্গেই। কিন্তু মেহেদী হাসান মিরাজের বলে স্বপ্নভঙ্গ হয় ওশাদার। মিরাজের বল সুইপ করতে গিয়ে ব্যাটের ওপরের কানায় লেগে বল উঠে যায় বাতাসে। ক্যাচটি সহজেই ধরে নেন লিটন দাস। ২২১ বল, ৮ বাউন্ডারিতে নিজের ইনিংসটি খেলেছিলেন ওশাদা।

এ প্রতিবদেন লেখার সময় চা বিরতি শুরু হয়েছে। শ্রীলঙ্কার সংগ্রহ ৬ উইকেটে ৪২৫।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন