বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

গতকাল ২৮ বছর বয়সী ১৬ বলে ১ চার ও ৩ ছক্কায় ৩৩ রান করেছেন। তাঁর এমন ঝড়েই ম্যাচটা সহজ হয়ে যায় দিল্লির জন্য। অবশেষে তাঁর ওপর রাখা আস্থার প্রতিদান দিচ্ছেন উইন্ডিজ অলরাউন্ডার। প্রথম পাঁচ ম্যাচে দিল্লির হয়ে মাত্র ৩১ রান করেছিলেন পাওয়েল। এর মধ্যে দুটি শূন্য ছিল। রাজস্থান রয়্যালসের বিপক্ষে হেরে যাওয়া ম্যাচেই প্রথম ফর্মের দেখা পেয়েছেন। সেদিন ১৫ বলে ৩৬ রান করেছিলেন পাওয়েল।

default-image

ক্রিকেটভিত্তিক ওয়েবসাইট ক্রিকইনফোর সঙ্গে কথোপকথনে পাওয়েলের ব্যাটিং প্রসঙ্গে বিশপ বলছিলেন, ‘ক্যারিবীয়তে আদিল রশিদ ও মঈন আলীর বিপক্ষে তার শতকের কথা মনে করে দেখছিলাম। গত ফেব্রুয়ারিতে সে ভারতের বিপক্ষে একই স্পিনারদের বিপক্ষে ৪৩ গড়ে রান করেছে। সে অনেক দূর এসেছে, পেসের বিপক্ষে খুব ভালো এবং খুব চমৎকার আচরণ ওর।’

default-image

পাওয়েলকে আইপিএল খেলতে দেখে বেশ ভালো লাগছে বিশপের। জ্যামাইকার ওল্ড হার্বরের ব্যানিস্টার জেলায় বড় হয়েছেন পাওয়েল। তাঁকে ও তাঁর ছোট বোনকে নিয়ে অনেক কষ্টে দিন কাটাতেন তাঁদের মা। ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগের এক তথ্যচিত্রে তাঁর বেড়ে ওঠার গল্পটা আছে।

অনুপ্রাণিত হতে চাইলে পাওয়েলের গল্পটা জেনে নেওয়ার অনুরোধ জানিয়েছেন বিশপ, ‘কারও হাতে ১০ মিনিট থাকলে বলব রোভমান পাওয়েলের জীবনের গল্প দেখুন। ইউটিউবেই আছে। বুঝতে পারবেন, ও আইপিএলের স্বাদ পাওয়ায় কেন মানুষ, আমিও এদের মধ্যে পড়ি, এত রোমাঞ্চিত হয়েছিলাম। ও খুবই দরিদ্র পরিবারে জন্মেছে। সে যখন মাধ্যমিকে পড়ত, তখনই ওর মাকে কথা দিয়েছিল একদিন পরিবারের এই দশা কাটাবে। সে এখন তাঁর স্বপ্ন পূরণ করতে পারছে। দুর্দান্ত গল্প।’

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন