পিঠের চোটে ভোগা বুমরাকে বিশ্বকাপ দলে পেতে তাড়াহুড়ো করেই ঘরের মাঠে অস্ট্রেলিয়া ও দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজের দলে নিয়েছিল ভারত। যদিও চোটের কারণে দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজে মাঠে নামা হয়নি, খেলতে পারেননি টি–টোয়েন্টি বিশ্বকাপও।

ভারত তাই বুমরাকে নিয়ে একই ভুল করতে চায় না। জাতীয় ক্রিকেট দলের প্রধান নির্বাচক চেতন শর্মা বলেছেন, ‘ক্রিকেটারদের খেলার চাপের বিষয়টা নির্বাচক কমিটি মাথায় রেখেছে। বিশ্বকাপে খেলানোর জন্য বুমরাকে নিয়ে তাড়াহুড়ো করেছিলাম। তাঁর ফলটা কী হলো, তা দেখতেই পাচ্ছেন, বিশ্বকাপে আমাদের বুমরাকে ছাড়াই খেলতে হচ্ছে।’

বাংলাদেশ সফরে  বুমরাকে পেতে কোনো তড়িঘড়ি না করলেও ঘরের মাঠে অস্ট্রেলিয়া সিরিজের জন্য বুমরাকে পাওয়া নিয়ে আশাবাদী তারা, ‘সে আমাদের দলের গুরুত্বপূর্ণ সদস্য। অস্ট্রেলিয়া সফরে তাকে পাওয়া নিয়ে আশাবাদী। তবে বাংলাদেশ সফরে তাকে নিয়ে ঝুঁকি নিতে চাই না।’

রোহিতের পরিবর্তে নিউজিল্যান্ড সফরে ভারতের টি-টোয়েন্টি দলকে নেতৃত্ব দেবেন হার্দিক পান্ডিয়া। তবে বাংলাদেশ সফর থেকে বিশ্রাম দেওয়া হয়েছে এই অলরাউন্ডারকে।

আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ এই সিরিজের প্রথম টেস্ট আগামী ১৪ ডিসেম্বর চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে শুরু হবে। দ্বিতীয় টেস্ট মিরপুরে ২২ ডিসেম্বর। আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ র‌্যাঙ্কিংয়ে বাংলাদেশ আছে ৯ নম্বরে।

ভারতের অবস্থান চারে। বাংলাদেশের বিপক্ষে ওয়ানডে তিনটি হবে আগামী ৪, ৭ ও ১০ ডিসেম্বর। সব কটি ম্যাচই মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে। বাংলাদেশ-ভারত সিরিজের ওয়ানডে ম্যাচগুলো আইসিসি সুপার লিগের অংশ নয়।