default-image

পাকিস্তানের দুই ফাস্ট বোলার শাহিন শাহ আফ্রিদি ও হাসান আলীর গতি ও নিয়ন্ত্রণ, আর লেগ স্পিনার ইয়াসির শাহর ঘূর্ণিতে টসে জিতে ব্যাটিংয়ে নামা শ্রীলঙ্কা শুরুতেই এলোমেলো হয়ে যায়। ৬০ রানে ৪ উইকেট হারায় তারা। এই চার উইকেটের দুটিই নিয়েছেন ইয়াসির।

কুশল মেন্ডিসের উইকেট নিয়ে ইয়াসির টেস্ট উইকেট শিকারে ছুঁয়ে ফেলেন কিংবদন্তি আবদুল কাদিরকে। অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুসকে আউট করে ছাড়িয়ে যান কাদিরকে। ২৩৭ উইকেট নিয়ে টেস্ট উইকেট শিকারে এখন তিনি পাকিস্তানের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ পাওয়া স্পিনার। তাঁর সামনে এখন শুধুই সাবেক স্পিনার দানিশ কানেরিয়া (২৬১ উইকেট)।

default-image

একটা পর্যায়ে শ্রীলঙ্কা ১৩৩ রানে ৮ উইকেট হারিয়ে ফেলে। এখান থেকে তারা যে দুই শ পার করতে পেরেছে, তা চান্ডিমালের অর্ধশতক আর তিকশানার ছোট কিন্তু কার্যকরী একটি ইনিংসে ভর করে। পাঁচে ব্যাট করতে নেমে হাসান আলীর বলে আউট হওয়ার আগে ১১৫ বলে ৭৬ রান করেছেন চান্ডিমাল। আর ১০ নম্বরে নামা তিকশানা ৬৫ বলে করেছেন ৩৮ রান।

ইয়াসির উইকেট শিকারে কাদিরকে ছাড়িয়ে যাওয়ার কীর্তি গড়লেও শ্রীলঙ্কার ব্যাটসম্যানদের বেশি ভুগিয়েছেন শাহিন আফ্রিদি। ৫৮ রান দিয়ে ৪ উইকেট নিয়েছেন পাকিস্তানের বাঁহাতি ফাস্ট বোলার। হাসান আলী ২ উইকেট নিয়েছেন ২৩ রান দিয়ে।

default-image

শেষ বিকেল ব্যাটিংয়ে নেমে পাকিস্তান প্রথম উইকেট হারায় ১২ রানে। ইমাম-উল-হকের উইকেটটি নিয়েছেন পেসার কাসুন রাজিতা। প্রথম উইকেট একজন পেসার পেলেও লঙ্কান ঘূর্ণিতে হাঁসফাঁস করেছেন পাকিস্তানের ব্যাটসম্যানরা। ওপেনার আবদুল্লাহ শফিককে এলবিডব্লুর ফাঁদে ফেলে আউট করেছেন বাঁহাতি স্পিনার প্রভাত জয়াসুরিয়া।

ক্রিকেট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন