বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

আপাতত সে প্রশ্নের জবাব ইন্টারের পক্ষেই দিতে হচ্ছে। লুকাকুরা চলে গেলেও ইন্টারের খেলার ধার কমেনি মোটেও। সেটার প্রমাণই আজ আবার দেখা গেল। চ্যাম্পিয়নস লিগে রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে ম্যাচ হারা ইন্টার আজ দুর্দান্তভাবে ফিরে এসেছে জয়ের মাধ্যমে। ফিওরেন্তিনাকে ৩-১ গোলে হারিয়েছে তারা।

তবে শুরুতে এগিয়ে গিয়েছিল ফিওরেন্তিনাই। প্রথমার্ধে চ্যাম্পিয়ন ইন্টারের ওপর রীতিমতো ছড়ি ঘুরিয়েছে তারা। এই মৌসুমেই জার্মান ক্লাব ভিএফবি স্টুটগার্ট থেকে ফিওরেন্তিনায় নাম লেখানো আর্জেন্টাইন উইঙ্গার নিকোলাস গঞ্জালেসের সহায়তায় ২৩ মিনিটে গোল করে ফিওরেন্তিনাকে এগিয়ে দেন ইতালিয়ান উইঙ্গার রিকার্দো সোতিল।

default-image

আরও বেশ কিছু সুযোগ পেয়েছিল ফিওরেন্তিনা, কাজে লাগাতে পারেনি। বিরতিতে কোচের পরামর্শ পেয়ে দ্বিতীয়ার্ধে যেন ঝলসে ওঠে ইন্টার। ৪ মিনিটের ব্যবধানে ২ গোল করে দলকে এগিয়ে দেন ইন্টার খেলোয়াড়েরা। ৫২ মিনিটে ইতালিয়ান মিডফিল্ডার নিকোলো বারেল্লার সহায়তায় গোল করে দলকে সমতায় ফেরান রাইটব্যাক মাত্তেও দারমিয়ান।

৫৫ মিনিটে এবার গোলের খাতায় নাম তোলেন বসনিয়ান স্ট্রাইকার এদিন জেকো, লুকাকুর পরিবর্ত হিসেবে এবার এএস রোমা থেকে যাঁকে আনা হয়েছে। তাঁর গোলে সহায়তা করেছেন এসি মিলান থেকে ফ্রিতে এই মৌসুমেই জেকোর মতো ইন্টারে আসা তুরস্কের মিডফিল্ডার হাকান চালহানোলু।

৭৮ মিনিটে লাল কার্ড দেখে ফিওরেন্তিনার বিপদ আরও বাড়িয়ে দেন নিকোলাস গঞ্জালেস। ৮৭ মিনিটে ইতালিয়ান মিডফিল্ডার রবার্তো গালিয়ার্দিনির সহায়তায় তৃতীয় গোল করেন ক্রোয়েশিয়ান উইংব্যাক ইভান পেরিসিচ। পুরো ৩ পয়েন্ট নিয়েই মাঠ ছাড়ে ইন্টার। এই জয় নিয়ে নাপোলিকে হটিয়ে আবারও ইতালিয়ান লিগের শীর্ষে উঠে এসেছে ইন্টার মিলান।

ওদিকে দিনের আরেক ম্যাচে সাসসুয়োলোকে ২-১ গোলে হারিয়েছে আতালান্তা। আতালান্তার হয়ে ২ গোল করেছেন দুই উইংব্যাক রবিন গোসেনস ও দাভিদে জাপাকস্তা। সাসসুয়োলোর হয়ে গোল করেছেন ইতালিয়ান উইঙ্গার দমেনিকো বেরার্দি।

ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন