বিজ্ঞাপন

প্রিমিয়ার লিগ

default-image

সপ্তমবারের মতো ইংল্যান্ডের শীর্ষ লিগ  জিতল ম্যানচেস্টার সিটি, প্রিমিয়ার লিগ যুগে পঞ্চমবার। তিন ম্যাচ হাতে রেখেই এবার লিগের ট্রফি নিশ্চিত করেছে সিটি। পেপ গার্দিওলার অধীনে সর্বশেষ চার মৌসুমে এ নিয়ে তৃতীয়বার লিগ জিতল সিটি।
মৌসুমের শেষ ম্যাচে ম্যান সিটির জার্সিতে শেষবারের মতো খেলেছেন সার্জিও আগুয়েরো। জোড়া গোল করে সিটির জার্সিতে নিজের গোলসংখ্যাটা নিয়ে গেছেন ১৮৪-তে। ইংল্যান্ডের শীর্ষ লিগে এক ক্লাবের হয়ে সবচেয়ে বেশি গোল করার কীর্তিটাও এখন তাঁর।

এক নজরে প্রিমিয়ার লিগ

চ্যাম্পিয়ন ম্যানচেস্টার সিটি

চ্যাম্পিয়নস লিগ ম্যানচেস্টার সিটি, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, লিভারপুল, চেলসি

ইউরোপা লিগ লেস্টার সিটি, ওয়েস্ট হাম, টটেনহাম

অবনমিত ফুলহাম, ওয়েস্ট ব্রম, শেফিল্ড ইউনাইটেড

সবচেয়ে বেশি গোল (দল) ম্যানচেস্টার সিটি (৮৩)

সর্বোচ্চ গোলদাতা হ্যারি কেইন (টটেনহাম), ২৩টি

সেরা গোলরক্ষক এদেরসন (ম্যানচেস্টার সিটি), ১৯ ক্লিন শিট

লা লিগা

১১তম বারের মতো লা লিগার শিরোপা জিতেছে আতলেতিকো মাদ্রিদ। নাটকীয়টায় ঠাসা মৌসুমের একেবারের শেষ দিনে এসে নিশ্চিত হয়েছে আতলেতিকোর শিরোপা। দিয়েগো সিমিওনের অধীনে ২০১৩-১৪ মৌসুমের পর এই প্রথম লা লিগার চ্যাম্পিয়ন হলো আতলেতিকো। ২০০৭-০৮ সালের পর এই প্রথম শীর্ষ দুইয়ের মধ্যে থেকে লিগ শেষ করতে পারেনি বার্সেলোনা।

default-image

এক নজরে লা লিগা


চ্যাম্পিয়ন আতলেতিকো মাদ্রিদ

চ্যাম্পিয়নস লিগ আতলেতিকো মাদ্রিদ, রিয়াল মাদ্রিদ, বার্সেলোনা, সেভিয়া

ইউরোপা লিগ রিয়াল সোসিয়েদাদ, রিয়াল বেতিস, ভিয়ারিয়াল

অবনমিত উয়েস্কা, ভায়াদোলিদ, এইবার

সবচেয়ে বেশি গোল (দল) বার্সেলোনা (৮৫)

সর্বোচ্চ গোলদাতা লিওনেল মেসি (বার্সেলোনা), ৩০টি

সেরা গোলরক্ষক ইয়ান ওবলাক (আতলেতিকো), ম্যাচপ্রতি গোল খেয়েছেন ০.৬৬

বুন্দেসলিগা

default-image

চ্যাম্পিয়নস বায়ার্ন মিউনিখ আরও একবার সাফল্যের সঙ্গে শিরোপা ধরে রেখেছে। এ নিয়ে টানা নবমবারের মতো লিগ শিরোপা জিতল বায়ার্ন, সব মিলিয়ে ৩১তম বারের মতো হলো জার্মানির চ্যাম্পিয়ন। দাপুটে মৌসুমে দলগত অর্জনের পাশাপাশি ব্যক্তিগত অর্জনও কম নয় বায়ার্ন খেলোয়াড়দের। বায়ার্ন ও জার্মানির কিংবদন্তি গার্ড মুলারের এক মৌসুমে লিগে সবচেয়ে বেশি গোলের (৪০) রেকর্ড ভেঙে দিয়েছেন রবার্ট লেভানডফস্কি (৪১ গোল)।  

এক নজরে বুন্দেসলিগা

চ্যাম্পিয়ন বায়ার্ন মিউনিখ

চ্যাম্পিয়নস লিগ বায়ার্ন মিউনিখ, লাইপজিগ, বরুসিয়া ডর্টমুন্ড, ভলফসবুর্গ

ইউরোপা লিগ ফ্রাঙ্কফুর্ট, লেভারকুসেন, ইউনিয়ন বার্লিন

অবনমিত ভেরডার ব্রেমেন, শালকে

সবচেয়ে বেশি গোল (দল) বায়ার্ন মিউনিখ (৯৯)

সর্বোচ্চ গোলদাতা রবার্ট লেভানডফস্কি (বায়ার্ন মিউনিখ) , ৪১টি

সেরা গোলরক্ষক পিটার গুলাসি (লাইপজিগ), ১৫ ক্লিন শিট

সিরি ‘আ’

default-image

টানা নয়বারের চ্যাম্পিয়ন জুভেন্টাসের শিরোপা-রথ থামিয়ে দিয়ে লিগ জিতে নিয়েছে ইন্টার মিলান। ২০০৯-১০ মৌসুমের পর এই প্রথম লিগ জিতল ইন্টার। ২৯ গোল করে লিগের সর্বোচ্চ গোলদাতা হওয়া জুভের পর্তুগিজ ফরোয়ার্ড ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো গড়েছেন নতুন কীর্তি। প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে ইউরোপের শীর্ষ তিনটি লিগে (ইংল্যান্ড, স্পেন ও ইতালি) মৌসুমের সর্বোচ্চ গোলদাতা হলেন রোনালদো।

এক নজরে সিরি ‘আ’

চ্যাম্পিয়ন ইন্টার মিলান

চ্যাম্পিয়নস লিগ ইন্টার মিলান, এসি মিলান, আতালান্তা, জুভেন্টাস

ইউরোপা লিগ নাপোলি, লাৎসিও, রোমা

অবনমিত বেনেভেন্তো, ক্রোতোনে, পারমা

সবচেয়ে বেশি গোল (দল) আতালান্তা (৯০)

সর্বোচ্চ গোলদাতা ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো (জুভেন্টাস), ২৯টি

সেরা গোলরক্ষক দোন্নারুম্মা (মিলান), হান্দানোভিচ (ইন্টার মিলান), ১৪টি ক্লিন শিট

লিগ ‘আ’

default-image

টানা তিনবারের চ্যাম্পিয়ন পিএসজির কাছ থেকে লিগের মুকুট কেড়ে নিয়েছেন লিল। এ নিয়ে চতুর্থবারের মতো লিগ আ জিতল লিল, ২০১০-১১ মৌসুমের পর এই প্রথমবার। রক্ষনভাগে দুর্দান্ত পারফর্ম করেছে এবার লিগ, ইউরোপের শীর্ষ পাঁচ লিগের সব দলের মধ্যে সবচেয়ে কম খেয়েছে এই মৌসুমের ফরাসি চ্যাম্পিয়নরা (মাত্র ২৩টি)।

এক নজরে লিগ ‘আ’
চ্যাম্পিয়ন লিল

চ্যাম্পিয়নস লিগ লিল, পিএসজি, মোনাকো

ইউরোপা লিগ লিওঁ, মার্শেই, রেনে

অবনমিত নিম, দিজোঁ

সবচেয়ে বেশি গোল (দল) পিএসজি (৮৬)

সর্বোচ্চ গোলদাতা কিলিয়ান এমবাপ্পে (পিএসজি), ২৭টি

সেরা গোলরক্ষক মাইক মাইনান (লিল), ২১টি ক্লিন শিট

ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন