বিজ্ঞাপন

বাছাইপর্বের তিনটি ম্যাচ-ই অনুষ্ঠিত হবে কাতারে। সেখানে গিয়েই অনুশীলন ক্যাম্পসহ দুটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলার কথা ছিল বাংলাদেশের। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সে পরিকল্পনা বাতিল হয়ে যায়। বাফুফে হাল ছেড়ে না দিয়ে সৌদি আরব ফুটবল ফেডারেশনের সঙ্গে যোগাযোগ করে তাদের রাজি করানো হয়। দুটি ম্যাচের প্রস্তাব দেওয়া হলে একটি ম্যাচের নিশ্চয়তা দিয়েছে সৌদি আরব ফুটবল ফেডারেশন।

কাজী নাবিল আহমেদ বলেন, ‘আশা করছি পরশু দিন (সোমবার) সৌদি আরব যাচ্ছে দল। সেখানে একটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে। প্রতিপক্ষ এখনো চূড়ান্ত না হলেও সৌদি আরব ফুটবল ফেডারেশন ভালো দলের বিপক্ষে ম্যাচ আয়োজনের ব্যাপারে প্রত্যাশার কথা জানিয়েছে। ভালো দলের বিপক্ষে খেলতে পারলে খেলোয়াড়দের মধ্যে প্রতিযোগিতামূলক ম্যাচের আবহ তৈরি হবে।’ সেখান থেকেই ৩০ মে সরাসরি কাতারে চলে যাবে বাংলাদেশ দল।

default-image

সৌদি আরব যাওয়ার বিষয়টি লিখিতভাবে চূড়ান্ত হওয়ার কথা আগামীকাল রোববার। মূলত সেখানে গিয়ে কদিন কোয়ারেন্টিন থাকতে হবে, সে বিষয়টি আগে সৌদি ফুটবল ফেডারেশনের কাছ থেকে পুরোপুরি নিশ্চিত হতে চায় বাফুফে। তবে সোমবার দল সৌদি আরবে যাচ্ছে, সেটা ধরে নিয়েই সব প্রস্তুতি চলছে। সেখান থেকেই ৩০ মে সরাসরি কাতারে দল চলে যাওয়ার কথা।

২০১৯ সালে দারুণ প্রস্তুতি নিয়ে বিশ্বকাপ বাছাই শুরু করেছিল বাংলাদেশ। দুশানবেতে আফগানিস্তানের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচ খেলার আগে সেখানে দুই সপ্তাহের প্রস্তুতি নিয়েছিলেন জামাল ভূঁইয়ারা। সেখানে দুটি প্রস্তুতি ম্যাচও খেলেছিলেন। যদিও শেষ পর্যন্ত ১-০ গোলে হেরে বাছাইপর্ব শুরু করে বাংলাদেশ। ৩ জুন আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়েই স্থগিত হয়ে থাকা বাছাইপর্ব শুরু করতে যাচ্ছে জেমি ডের দল। ৭ ও ১৫ জুন যথাক্রমে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ ভারত ও ওমান।

বাংলাদেশের বিশ্বকাপ স্বপ্ন শেষ হয়েছে আগেই। এখন টিকে আছে এশিয়ান কাপ খেলার স্বপ্ন। ৫ ম্যাচ শেষে মাত্র এক পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের তলানিতে বাংলাদেশ। ১৬ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষে কাতার। ১২ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে ওমান। ৪ ও ৩ পয়েন্ট নিয়ে যথাক্রমে তৃতীয় ও চতুর্থ স্থানে আফগানিস্তান ও ভারত।

ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন